HSC/এইচএসসি পদার্থ বিজ্ঞান ২য় পত্র সংক্ষিপ্ত সাজেশন ২০২১, ফাইনাল সাজেশন এইচএসসি পদার্থ বিজ্ঞান ২য় পত্র ২০২১, HSC Physics 2nd paper Suggestion 100% Common Guaranty, special short suggestion HSC Suggestion Physics 2nd paper 2021

HSC/এইচএসসি পদার্থ বিজ্ঞান ২য় পত্র সংক্ষিপ্ত সাজেশন ২০২১, ফাইনাল সাজেশন এইচএসসি পদার্থ বিজ্ঞান ২য় পত্র ২০২১, HSC Physics 2nd paper Suggestion 100% Common Guaranty, special short suggestion HSC Suggestion Physics 2nd paper 2021

এইচ এস সি পরীক্ষা প্রস্তুতি শিক্ষা সাজেশন
শেয়ার করুন:

বিষয়: এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের পদার্থ বিজ্ঞান ২য় পত্র সাজেশন ২০২১

১। পানির ত্রৈধবিন্দু কাকে বলে?

উত্তর : একটি নির্দিষ্ট চাপে যে তাপমাত্রায় বিশুদ্ধ বরফ, পানি ও সম্পৃক্ত জলীয় বাষ্প তাপীয় সাম্যাবস্থায় থাকে তাকে পানির ত্রৈধবিন্দু বলে।

২। সমোষ্ণ প্রক্রিয়া ও সমোষ্ণ পরিবর্তন কাকে বলে?

উত্তর : যে প্রক্রিয়ায় গ্যাসের চাপ ও আয়তনের পরিবর্তন হয়; কিন্তু তাপমাত্রার পরিবর্তন হয় না, তাকে সমোষ্ণ প্রক্রিয়া এবং সমোষ্ণ পরিবর্তন বলে।

৩। অন্তঃস্থ শক্তি বা অভ্যন্তরীণ শক্তি বলতে কী বোঝো?

উত্তর : কোনো ব্যবস্থায় সঞ্চিত শক্তি, যা পরিবেশ ও পরিস্থিতি অনুসারে অন্যান্য শক্তিতে রূপান্তরিত হতে পারে তাকে অভ্যন্তরীণ শক্তি বলে।

৪। এনট্রপি কী?

উত্তর : কোনো ব্যবস্থায় শক্তি রূপান্তরের অক্ষমতা বা সম্ভাব্যতাকে এনট্রপি বলে।

৫। মোলার তাপ ধারণক্ষমতা কাকে বলে?

উত্তর : গ্যাসের তাপমাত্রা এক কেলভিন বৃদ্ধি করতে যে পরিমাণ তাপের দরকার হয় তাকে মোলার তাপ ধারণক্ষমতা বলে।

৬। রুদ্ধতাপীয় সূচক ম বলতে কী বোঝো?

উত্তর : ঈঢ় ও ঈা এর অনুপাতকে রুদ্ধতাপীয় সূচক ম বলে।

৭। ঈঢ় কাকে বলে?

উত্তর : চাপ স্থির রেখে ১ সড়ষ গ্যাসের তাপমাত্রা ১শ বৃদ্ধি করতে যে পরিমাণ তাপের প্রয়োজন হয়, তাকে স্থির চাপে গ্যাসের মোলার আপেক্ষিক তাপ ঈঢ় বলে।

৮। ঈা কাকে বলে?

উত্তর : আয়তন স্থির রেখে ১ সড়ষ গ্যাসের তাপমাত্রা ১শ বৃদ্ধি করতে যে পরিমাণ তাপের প্রয়োজন হয়, তাকে স্থির আয়তনে গ্যাসের মোলার আপেক্ষিক তাপ ঈা বলে।

৯। জগতের তাপীয় মৃত্যু বলতে কী বোঝো?

উত্তর : এনট্রপি ক্রমাগত বৃদ্ধির জন্য বিশ্বজগতের সব সিস্টেমের তাপমাত্রা সমান হয়ে যাবে এবং কাজ করার মতো কোনো তাপশক্তির আদান-প্রদান হবে না। এভাবে জগতের তাপ মৃত্যুর দিকে অগ্রসর হওয়াকে জগতের তাপীয় মৃত্যু বলে।

১০। সিস্টেম কী?

উত্তর : জড় জগতের অংশবিশেষ, যা পর্যবেক্ষণের জন্য বিবেচনা করা হয়, তাকে ব্যবস্থা বা সংস্থা বা সিস্টেম বলে।

১১। অন্তঃরোধ বা অভ্যন্তরীণ রোধ বলতে কী বোঝো?

উত্তর : কোষের উপাদানসমূহ এর মধ্য দিয়ে বিদ্যুৎ প্রবাহে যে বাধার সৃষ্টি করে তাকে কোষের অন্তঃরোধ বা অভ্যন্তরীণ রোধ বলে।

১২। আপেক্ষিক রোধ কাকে বলে?

উত্তর : নির্দিষ্ট তাপমাত্রায় একক দৈর্ঘ্য এবং একক প্রস্থচ্ছেদ বিশিষ্ট কোনো পরিবাহীর রোধকে ওই তাপমাত্রায় ওই পরিবাহীর উপাদানের আপেক্ষিক রোধ বলে।

১৩। শান্ট কী?

উত্তর : বৈদ্যুতিক যন্ত্রপাতিকে বৈদ্যুতিক দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা করার জন্য বৈদ্যুতিক যন্ত্রের কুণ্ডলী রোধের সঙ্গে সমান্তরাল সমবায়ে অল্প মানের যে রোধ ব্যবহার করা হয় তাকে শান্ট বলে।

১৪। পটেনশিওমিটার কী?

উত্তর : যে যন্ত্রের সাহায্যে বিভব পতন প্রক্রিয়ায় বিভব পার্থক্য ও তড়িচ্চালক শক্তি পরিমাপ করা যায় তাকে পটেনশিওমিটার বলে।

১৫। কিলোওয়াট-ঘণ্টা কী?

উত্তর : এক কিলোওয়াট ক্ষমতার একটি বৈদ্যুতিক যন্ত্র এক ঘণ্টায় যে পরিমাণ তড়িৎ শক্তি ব্যয় করে তাকে কিলোওয়াট-ঘণ্টা বলে।

১৬। অ্যামিটার কী?

উত্তর : যে যন্ত্রের সাহায্যে বর্তনীর তড়িৎ প্রবাহমাত্রাকে সরাসরি অ্যাম্পিয়ার এককে পরিমাপ করা হয় তাকে অ্যামিটার বলে।

১৭। ভোল্টমিটার কী?

উত্তর : যে যন্ত্রের সাহায্যে পরিবাহীর দুই প্রান্তের বিভব পার্থক্য সরাসরি ভোল্ট এককে পরিমাপ করা হয় তাকে ভোল্টমিটার বলে।

১৮। তড়িচ্চালক শক্তি কাকে বলে?

উত্তর : প্রতি একক চার্জকে কোষসমেত বর্তনীর কোনো বিন্দু থেকে সম্পূর্ণ বর্তনী ঘুরিয়ে উক্ত বিন্দুতে আনতে কোষ যে পরিমাণ কাজ সম্পাদন করে তাকে কোষের তড়িচ্চালক শক্তি বলে।

১৯। পোস্ট অফিস বক্স কী?

উত্তর : পোস্ট অফিস বক্স তিন বাহুসম্পন্ন রোধ বাক্সবিশেষ। যে রোধ বক্সের তিন বাহুকে হুইটস্টোন ব্রিজের তিন বাহু বিবেচনা করে এবং হুইটস্টোন ব্রিজ নীতি ব্যবহার করে অজানা রোধ পরিমাপ করা হয় তাকে পোস্ট অফিস বক্স বলে।

২০। সুসংগত আলোক উৎস বলতে কী বোঝো?

উত্তর : দুটি আলোক উৎস হতে নির্গত নির্দিষ্ট দশা পার্থক্যে আলোক তরঙ্গের বিস্তার, কম্পাঙ্ক ও তরঙ্গদৈর্ঘ্য একই হলে ওই উৎসদ্বয়কে সুসংগত আলোক উৎস বলে।

২১। তরঙ্গমুখ কাকে বলে?

উত্তর : তরঙ্গস্থিত সমদশাসম্পন্ন কণাসমূহ যে তলে অবস্থান করে তাকে তরঙ্গমুখ বলে।

২২। হাইগেনসের নীতি বলতে কী বোঝো?

উত্তর : তরঙ্গমুখের প্রতিটি বিন্দু এক একটি গৌণ তরঙ্গের উৎস হিসেবে ক্রিয়া করে। এই গৌণ উৎস হতে নির্গত গৌণ তরঙ্গ মূল তরঙ্গের বেগে অগ্রসর হয়। কোনো মুহূর্তে গৌণ তরঙ্গগুলোকে স্পর্শ করে যে সাধারণ স্পর্শ তল পাওয়া যায়, তা ওই সময়ে নতুন তরঙ্গমুখের অবস্থান নির্দেশ করে।

২৩। আলোর ব্যতিচার কাকে বলে?

উত্তর : একই বিস্তার, কম্পাঙ্ক ও তরঙ্গদৈর্ঘ্য বিশিষ্ট দুটি আলোক তরঙ্গের উপরিপাতনের ফলে পর্যায়ক্রমে উজ্জ্বল ও অন্ধকার সৃষ্টি হওয়াকে আলোর ব্যতিচার বলে।

২৪। আলোর অপবর্তন কাকে বলে?

উত্তর : কোনো প্রতিবন্ধকের ধার ঘেঁষে যাওয়ার সময় আলো প্রকৃত সরল পথ হতে বেঁকে যায়, এ ঘটনাকে আলোর অপবর্তন বলে। অপবর্তন একটি বিশেষ ধরনের ব্যতিচার।

২৫। আলোর সমবর্তন কাকে বলে?

উত্তর : কোনো তরঙ্গের স্বেচ্ছাধীন বিভিন্নমুখী কম্পনকে একটি নির্দিষ্ট তলে নির্দিষ্ট দিকে সীমাবদ্ধ করাকে আলোর সমবর্তন বলে।

২৬। পয়েন্টিং ভেক্টর কী?

উত্তর : কোনো তড়িৎ চৌম্বক তরঙ্গের গতিপথে লম্বভাবে স্থাপিত কোনো একক ক্ষেত্রফলের মধ্য দিয়ে যে পরিমাণ শক্তি অতিক্রম করে তাকে পয়েন্টিং ভেক্টর বলে।

২৭। তরঙ্গের উপরিপাতন নীতি বলতে কী বোঝো?

উত্তর : দুই বা ততোধিক তরঙ্গ মাধ্যমের কণাকে একসঙ্গে অতিক্রম করাকে উপরিপাতন বলে এবং তখন কণাটির লব্ধ সরণ হবে তরঙ্গগুলো কর্তৃক পৃথক পৃথক সরণের ভেক্টর বীজগাণিতিক সমষ্টির সমান।

২৮। গ্রেটিং ধ্রুবক কী?

উত্তর : গ্রেটিংয়ের পর পর একটি রেখার প্রস্থ ও চিড়ের প্রস্থের যোগফলকে গ্রেটিং ধ্রুবক বলে।

২৯। সমবর্তন কোণ কাকে বলে?

উত্তর : কোনো প্রতিফলন মাধ্যমে আপতন কোণের যে সুনির্দিষ্ট মানের জন্য সমবর্তন সমাধিক হয়, তাকে সমবর্তন কোণ বলে।

৩০। দ্বৈত প্রতিসরণ কাকে বলে?

উত্তর : এমন কতকগুলো কেলাস আছে যাদের মধ্য দিয়ে আলোক রশ্মি গমন করলে এটি দুটি প্রতিসৃত রশ্মিতে বিভক্ত হয়, এই পদ্ধতিকে দ্বৈত প্রতিসরণ বলে।

৩১। ব্রুস্টারের সূত্র কী?

উত্তর : সমবর্তন কোণের ট্যানজেন্ট সংখ্যাগতভাবে প্রতিফলক মাধ্যমের প্রতিসরাঙ্কের সমান।

৩২। গ্যালিলিয়ান রূপান্তর কাকে বলে?

উত্তর : সময়কে পরম ধরে এবং আপেক্ষিকতার বিশেষ তত্ত্বের মৌলিক স্বীকার্যদ্বয় মেনে না চলে পরস্পরের সাপেক্ষে ধ্রুববেগে গতিশীল দুটি প্রসঙ্গকাঠামোর স্থান ও কালের মধ্যে সম্পর্ক স্থাপনকারী যেসব সমীকরণ পাওয়া যায় তাদের গ্যালিলিয়ান রূপান্তর বলে।

৩৩। লরেন্টজ রূপান্তর কাকে বলে?

উত্তর : সময়কে পরম না ধরে এবং আপেক্ষিকতার বিশেষ তত্ত্বের মৌলিক স্বীকার্যদ্বয় মেনে চলে পরস্পরের সাপেক্ষে ধ্রুববেগে গতিশীল দুটি প্রসঙ্গ কাঠামোর স্থান ও কালের মধ্যে সম্পর্ক স্থাপনকারী যেসব সমীকরণ পাওয়া যায় তাদের লরেন্টজ রূপান্তর বলে।

৩৪। আপেক্ষিকতা কাকে বলে?

উত্তর : চিরায়ত পদার্থবিজ্ঞানের ভাষায় স্থান, কাল ও জড় বা ভর ধ্রুবক। আইনস্টাইন বলেন, স্থান, কাল, জড় বা ভর ধ্রুবক নয়, এরা আপেক্ষিক। এদের মান পর্যবেক্ষকের আপেক্ষিক গতির ওপর নির্ভর করে। এটিকেই আইনস্টাইনের আপেক্ষিকতা বলে।

৩৫। প্রসঙ্গ কাঠামো বলতে কী বোঝো?

উত্তর : যে স্থানাঙ্ক ব্যবস্থার সাপেক্ষে কোনো গতিশীল বস্তুর অবস্থান নির্ণয় করা হয় তাকে প্রসঙ্গ কাঠামো বলে।

৩৬। জড় প্রসঙ্গ কাঠামো বলতে কী বোঝো?

উত্তর : যে প্রসঙ্গ কাঠামোতে জড়তার সূত্রসমূহ বা নিউটনের সূত্রাবলি প্রতিপাদন করা যায় তাকে জড় প্রসঙ্গ কাঠামো বলে।

৩৭। অজড় প্রসঙ্গ কাঠামো বলতে কী বোঝো?

উত্তর : যে প্রসঙ্গ কাঠামোতে জড়তার সূত্রসমূহ বা নিউটনের সূত্রাবলি প্রতিপাদন করা যায় না, তাকে অজড় প্রসঙ্গ কাঠামো বলে।

৩৮। কাল দীর্ঘায়ন কাকে বলে?

উত্তর : গতিশীল ঘড়ি নিশ্চল ঘড়ি অপেক্ষা ধীরে চলে। কোনো পর্যবেক্ষকের সাপেক্ষে গতিশীল ঘড়ি যদি গতিশীল না হয়ে নিশ্চল থাকত, তাহলে যে সময় দিত গতিশীল অবস্থায় তদপেক্ষা কম সময় দেবে। এই ঘটনাকে কাল দীর্ঘায়ন বলে।

৩৯। দৈর্ঘ্য সংকোচন কাকে বলে?

উত্তর : গতিশীল অবস্থায় কোনো দণ্ডের দৈর্ঘ্য নিশ্চল অবস্থায় ওই দণ্ডের দৈর্ঘ্য অপেক্ষা কম হয়। একে দৈর্ঘ্য সংকোচন বলে।

৪০। ভরের আপেক্ষিকতা বলতে কী বোঝো?

উত্তর : বস্তুর গতিশীল অবস্থার ভর নিশ্চল অবস্থার ভরের চেয়ে বেশি। একে ভরের আপেক্ষিকতা বলে।

৪১। শক্তি ব্যান্ড কী?

উত্তর : একই কক্ষপথে অবস্থিত ইলেকট্রনের শক্তির সর্বনিম্ন মান হতে সর্বোচ্চ মানের পাল্লাকে শক্তি ব্যান্ড বলে।

৪২। যোজন ব্যান্ড কী?

উত্তর : পরমাণুর যোজন ইলেকট্রনসমূহের শক্তির পাল্লাকে যোজন ব্যান্ড বলে।

[ বি:দ্র:এই সাজেশন যে কোন সময় পরিবতনশীল ১০০% কমন পেতে পরিক্ষার আগের রাতে সাইডে চেক করুন এই লিংক সব সময় আপডেট করা হয় ]

সৃজনশীল প্রশ্ন ১ : দুইদল শিক্ষার্থীর প্রথম দলকে 15 uF মানের তিনটি ধারক শ্রেণি সমবায়ে সজ্জিত করে 4V এর তড়িৎ কোষের সাথে সজ্জিত করে একটি বর্তনী তৈরি করতে বলা হলো। দ্বিতীয় দলকে 5 V এর তিনটি তড়িৎ কোষকে সমান্তরাল সমবায়ের সাথে 100 Ω মানের রোধ যুক্ত করতে বলায় তারা প্রবাহ 0.15 A পেল।

ক. সুপার নোভা কী?
খ. সূর্য কৃষ্ণবিবর হবে না কেন – ব্যাখ্যা কর।
গ. প্রথম দলের ক্ষেত্রে সঞ্চিত শক্তি বের কর।
ঘ. দ্বিতীয় দলটির সংযোগের সঠিকতা – বর্তনীসহ ব্যাখ্যা কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ২ : ইয়ং এর দ্বি-চির পরীক্ষায় দুটি চিরের মধ্যবর্তী দূরত্ব 0.20 mm। চির দুটিকে আলোকিত করা হলে চির হতে 1 m দূরে পর্দায় 32 mm জুড়ে ব্যতিচার ঝালর সৃষ্টি হয়। এতে পর্দার দুই প্রান্তে উজ্জ্বল ডোরা সৃষ্টি হয় এবং দ্বিতীয় উজ্জ্বল ডোরার কৌণিক ব্যবধান 0.458°। পরীক্ষণে পর্দায় সৃষ্ট মোট ডোরার সংখ্যা পর্যবেক্ষণ করা হলো।

ক. আলোকীয় পথ কী?
খ. একক চিরের পরীক্ষায় আলোর অপবর্তন ও ব্যতিচার যুগপৎ ঘটে-ব্যাখ্যা কর।
গ. যে দুটি রশ্মি তৃতীয় অন্ধকার ডোরা সৃষ্টি করে তাদের দশা পার্থক্য কত?
ঘ. উদ্দীপকের পর্যবেক্ষণ গাণিতিকভাবে বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৩ : স্লাইড পর্যবেক্ষণের জন্য জটিল অণুবীক্ষণ যন্ত্র ব্যবহার করা হচ্ছে যার অভিলক্ষ্য ও অভিনেত্রের ফোকাস দূরত্ব যথাক্রমে 0.4 cm ও 5 cm। এতে প্র ম বিম্ব লেন্স হতে 20 cm দূরে এবং চূড়ান্ত বিম্ব চোখের নিকট বিন্দুতে তৈরি হয়। ক্ষুদে বিজ্ঞানী লেন্স দুটির অবস্থান বিনিময় করে দূরবীক্ষণ যন্ত্র বানিয়ে 0.5626 D ক্ষমতার একটি উত্তল লেন্স অভিনেত্রের সাথে যুক্ত করে দাবী করল চূড়ান্ত বিবর্ধন একই এবং চূড়ান্ত বিম্ব নিকট বিন্দুতে আছে।

ক. চৌম্বক ফ্লাক্স কী?
খ. ট্রান্সফর্মার AC উৎসে চলে কিন্তু DC উৎসে চলে না – ব্যাখ্যা কর।
গ. স্লাইডটি অভিলক্ষ্য হতে কত দূরে আছে?
ঘ. ক্ষুদে বিজ্ঞানীর দাবী যৌক্তিক কী না? গাণিতিকভাবে যাচাই কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৪ : একটি ব্যাটারির তড়িচ্চালক শক্তি 10 V এবং অভ্যন্তরীণ রোধ 1 Ω। ব্যাটারির তড়িচ্চালক শক্তি পরিমাপের জন্য একটি ভোল্টমিটার ব্যবহার করা হলো কিন্তু ভোল্টমিটারটি পাঠে 1 % ত্রুটি দেখাল। এরপর ব্যাটারির সাথে শুধু ৯ Ω মানের একটি বহিঃস্থ রোধ যুক্ত করা হলো।

ক. আপেক্ষিক রোধ কী?
খ. অর্ধপরিবাহীর রোধের উষ্ণতা সহগ ঋণাত্মক হয়-ব্যাখ্যা কর।
গ. বহিঃস্থ রোধটির উৎপন্ন তাপের হার কত?
ঘ. ভোল্টমিটারটির ত্রুটি 0.5% এ নামিয়ে আনতে কী ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে? গাণিতিকভাবে বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৫ : ভাবনা একটি সরু চির হতে 1 m দূরত্বে একটি পর্দা স্থাপন করে চিরটিকে 3000 A তরঙ্গদৈর্ঘ্যরে আলো দ্বারা আলোকিত করে দেখল কেন্দ্রীয় চরমের উভয় পার্শ্বে প্র ম অবমের দূরত্ব 4 X 10-4 m। ভাবনা দ্বিতীয় চরমের জন্যও অপবর্তন কোণ নির্ণয় করল।

ক. দ্বৈত প্রতিসরণ কী?
খ. বেগুনি আলোর শক্তি লাল আলোর চেয়ে বেশি কেন?
গ. চিরের প্রস্থ নির্ণয় কর।
ঘ. ভাবনা কর্তৃক পরিমাপকৃত উভয় অবমের জন্য কৌণিক ব্যবধান কিরূপ হবে – বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৬ : একজন বিজ্ঞানীর বয়স 30 বছর। তিনি একটি মহাশূন্যযানে চড়ে মহাকাশ অভিযানে বের হলেন। তার হিসাবে 50 বছর পর পৃথিবীতে ফিরে আসলেন। মহাশূন্যযানের ভর 720 kg, মহাশূন্যযানের বেগ 3 X 106 m s=1।

ক. নিউক্লাইড কী?
খ. ভরের আপেক্ষিকতা ব্যাখ্যা কর।
গ. পৃথিবীতে ফিরে আসার পর পৃথিবীর হিসাবে মহাশূন্যচারীর বয়স কত হবে?
ঘ. মহাশূন্যযানের স্থির ও গতিশীল অবস্থায় ভরের তুলনা কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৭ : কোনো একটি নির্দিষ্ট স্থানে দুটি ভিন্ন ভিনড়ব পদার্থের তৈরি শলাকা চুম্বক তাদের চৌম্বক মধ্যতলে মুক্তভাবে স্থাপন করে ঐ স্থানের বিনতি পরিমাপ করা হলো। প্রথম ও দ্বিতীয় শলাকা চুম্বকের জন্য বিনতি যথাক্রমে 60° S ও 30 N পাওয়া গেল।

ক. টেসলার সংজ্ঞা দাও।
খ. স্থায়ী চুম্বক তৈরি করতে লোহার পরিবর্তে ইস্পাত ব্যবহার করা হয় কেন ব্যাখ্যা কর।
গ. উদ্দীপকের উল্লেখিত স্থানের ভূ-চৌম্বক ক্ষেত্রের অনুভূমিক উপাংশের মান নির্ণয় কর।
ঘ. চুম্বক শলাকা দুটির ক্ষেত্রে প্রাপ্ত ফলাফল সঠিক – বিশদভাবে বিশ্লেষণ করে মতামত দাও।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৮ : পরীক্ষাগারে সুমন ও মামুন দুটি কার্ণো ইঞ্জিন নিয়ে গবেষণা শুরু করল যাদের উৎসের তাপমাত্রা যথাক্রমে 60 °C এবং 80 °C। তারা উভয়েই কার্যনির্বাহক বস্তু হিসেবে 1 mole দ্বি-পরমাণুক গ্যাস ব্যবহার করেন। সুমন ও মামুনের ইঞ্জিনের আয়তন প্রসারণের অনুপাত যথাক্রমে 1 : 2 এবং 1 : 3।

ক. রেফ্রিজারেটর কী?
খ. এনট্রপির পরিবর্তন সর্বদা ধনাত্মক কেন? ব্যাখ্যা কর।
গ. সুমনের ইঞ্জিনের সামোষ্ণ প্রসারণে সম্পন্নব কাজ নির্ণয় কর।
ঘ. উদ্দীপকের কার ইঞ্জিনটি অধিক কর্মক্ষম – গাণিতিকযুক্তিসহ বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৯ : একটি কাল্পনিক ট্রেন 0.6 c বেগে গতিশীল অবস্থায় একটি প্লাটফরম অতিক্রম করল। প্লাটফরমে দাঁড়ানো একজন যাত্রী ট্রেনের দৈর্ঘ্য 200 m পরিমাপ করলেন যা প্লাটফরমের দৈর্ঘ্যরে সমান। ষ্টেশন মাষ্টার 10 ঘন্টা পর ট্রেনটি থামার নির্দেশ দিলো।

ক. নিবৃত্তি বিভব কাকে বলে?
খ. কম্পটন প্রক্রিয়ায় বিক্ষিপ্ত ফোটনের তরঙ্গ দৈর্ঘ্য বৃদ্ধি পায় কেন – ব্যাখ্যা কর।
গ. ট্রেনের যাত্রী প্লাটফরমের দৈর্ঘ্য কত পরিমাপ করবে?
ঘ. উদ্দীপকের ষ্টেশন মাষ্টারের সময় ব্যবধান ট্রেনের যাত্রীর নিকট কিরূপ মনে হবে – গাণিতিক যুক্তিসহ ব্যাখ্যা কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ১০ : NGDC-র পদার্থবিজ্ঞান পরীক্ষাগারে শক্তিশালী চৌম্বক ক্ষেত্র তৈরি করার জন্য একদল শিক্ষার্থী 3 m লম্বা একটি সোজা তারের মধ্যে 6 A তড়িৎ প্রবাহ করে 16 m দূরে চৌম্বক ক্ষেত্রের মান নির্ণয় করল। অতঃপর শিক্ষার্থীরা তারটিকে বৃত্তাকার কুন্ডলীতে পরিণত করে কেন্দ্রে অধিক চৌম্বক ক্ষেত্র পরিমাপ করল। এরপর শিক্ষার্থীরা 25 গুণ চৌম্বকক্ষেত্র সৃষ্টির জন্য তারটি পেঁচিয়ে 5 পাকের কুন্ডলী তৈরি করল।

ক. হল ক্রিয়া কী?
খ. চার্জের কোয়ান্টায়ন ব্যাখ্যা কর।
গ. প্রমক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের প্রাপ্ত চৌম্বকক্ষেত্রের মান নির্ণয় কর।
ঘ. উদ্দীপকের শিক্ষার্থীদের কাঙ্খিত চৌম্বকক্ষেত্র তৈরির প্রক্রিয়াটি কী সঠিক? গাণিতিকভাবে বিশ্লেষণ কর।

[ বি:দ্র:এই সাজেশন যে কোন সময় পরিবতনশীল ১০০% কমন পেতে পরিক্ষার আগের রাতে সাইডে চেক করুন এই লিংক সব সময় আপডেট করা হয় ]

HSC Physics 2nd Paper Suggestion 2021

সৃজনশীল প্রশ্ন ১ : তামান্না পদার্থ বিজ্ঞান ল্যাবে 27 ডিগ্রী সেলসিয়াস তাপমাত্রায় 740mm চাপে একটি ঘর্ষণবিহীন পিস্টনযুস্ত সিলিন্ডারে 16kg অক্সিজেন গ্যাস নিয়ে পিস্টনটিকে ধীরে ধীরে চাপ প্রয়োগে গ্যাসের আয়তন অর্ধেক করল। তারপর পিস্টনটিকে আবারপ্রাথমিক অবস্থায় এনে হঠাৎ চাপ প্রয়োগ করে সিলিন্ডারের গ্যাসের আয়তন অর্ধেক করল এবং লক্ষ্য করল গ্যাসের তাপমাত্রা বৃদ্ধি পেয়েছে।

ক. উষ্ণতামিতি ধর্ম কী?
খ. প্রত্যাগামী প্রক্রিয়ায় এনট্রপি স্থির থাকে কেন – ব্যাখ্যা কর।
গ. দ্বিতীয় ক্ষেত্রে চূড়ান্ত চাপ নির্ণয় কর।
ঘ. উদ্দীপকে উল্লেখিত দুটো প্রক্রিয়ার মধ্যে কোন প্রক্রিয়ায় পরিমাণ বেশি গাণিতিক ব্যাখ্যার মাধ্যমে মতামত দাও।

সৃজনশীল প্রশ্ন ২ : বায়ুতে ইয়ং এর দ্বি-চির ব্যবস্থা পরীক্ষায় দুটি চিরের মধ্যবতী দূরত্ব 2.0mm। এতে ব্যবহৃত আলোর তরঙ্গ দৈর্ঘ্য 5900A। 1 মিটার দূরে অবস্থিত পর্দার উপর ব্যতিচার ঝালর সৃষ্টি হল।

ক. ফামার্টের নীতিটি লিখ।
খ. গাড়ি লুকিং গ্রাসে উত্তল দর্পণ ব্যবহার করা হয় কেন?
গ. পরপর দুটি উজ্জ্বল ডোরার মধ্যবর্তী দূরত্ব নির্ণয় করো।
ঘ. পুরো পরীক্ষণটির কোনরূপ পরিবর্তন না করে বায়ুর পরিবর্তে 1.33 প্রতিসরাংক বিশিষ্ট তরলে করা হলে ডোরার প্রস্থের কোনরূপ পরিবর্তন হবে কিনা- গাণিতিক বিশ্লেষণ করো ।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৩ : একটি 250cm দৈর্ঘ্যের লম্বা ও সোজা পরিবাহী তারের মধ্য দিয়ে 6A মানের তড়িৎ প্রবাহিত হচ্ছে। তড়িৎ্বাহী তারটিকে এরপর বৃত্তাকারে এমনভাবে বাকানো হল যেন এর দুই প্রান্ত কেন্দ্রে 40 ডিগ্রী কোণ উৎপন্ন করে।

ক. অ্যাম্পিয়ারের সূত্রটি বিবৃত কর।
খ. লোহা ও আ্যালুমিনিয়াম যে চৌম্বক পদার্থের অন্তুর্ভুক্ত তাদের সাধারণ ধর্ম তুলনা কর।
গ. লম্বা ও সোজা অবস্থায় তারটি হতে 5cm দূরের কোন বিন্দুতে চৌস্বকক্ষেত্রের মান বের কর।
ঘ. দ্বিতীয় ক্ষেত্রে বৃত্তের কেন্দ্রে কীভাবে চৌম্বকক্ষেত্র হিসাব করবে তা গাণিতিকভাবে বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৪ : একটি ফ্রনহফার শ্রেণির একক চিরের পরীক্ষায় 6000A তরঙ্গ দৈর্যের একবর্ণী আলো 0.002mm বোধের বেধের একটি চিরের উপর আপতিত হল।

ক. ফার্মাটের নীতিটি বিবৃত করো ।
খ. উত্তল লেন্সে কখন অবাস্তব বিম্ব গঠিত হয় তা চিত্রসহ ব্যাখ্যা করো।
গ. দ্বিতীয় চরমের জন্য অপবর্তন কোণ নির্ণয় করো ।
ঘ. পরীক্ষায় পঞ্চম চরম পাওয়া যাবে কিনা তা গাণিতিক বিশ্লেষণের সাহায্যে যাচাই করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৫ : ফাইজা ও মাইশা দুই বোন। ফাইজার চোখ স্বাভাবিক হলেও মাইশা বই পড়ার জন্য +ID ক্ষমতার চশমা ব্যবহার করেন। একটি নভোদুরবীক্ষণ যন্ত্রে অভিলক্ষ্য ও অভিনেত্রের ক্ষমতা যথাক্রমে +0.5D ও +20D। উক্ত নভোবীক্ষণ যন্ত্র দ্বারা উভয়ই কোনো গ্রহ পর্যবেক্ষণ করছেন । মাইশা যন্ত্রটি ব্যবহার করার সময় চশমা ব্যবহার করেনি ।

ক. লজিক গেট কাকে বলে?
খ. চাঁদের আকাশ কালো দেখায় কেন?
গ. স্পষ্ট দর্শনের বিকটতম দূরত্বে ফোকাসিং এ যন্ত্রের দৈর্ঘ্য নির্ণয় কর।
ঘ. অসীম দূরত্বে ফোকাসিং এ দুই বোন একই বিবর্ধনের প্রতিবিম্ব লক্ষ্য করলে ও স্পস্ট দর্শনের নিকটতম দূরত্বে ফোকাসিং এর ক্ষেত্রে ভিন্ন বিবর্ধনের প্রতিবিম্ব লক্ষ্য করবে উত্তিটির যৌক্তিকতা বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৬ : জেমস একটি 0.99c বেগে ধাবমান মহাকাশযানের যাত্রী হয়ে 4 আলোকবর্ষ দূরের প্রতিবেশী নক্ষত্র আলফা সেন্টুরির দিকে চলছে।

ক. প্রসঙ্গ কাঠামো কী?
খ. সময় সম্প্রসারণ ও দৈর্ঘ্য সংকোচনের মধ্যে সম্পর্ক স্থাপন কর।
গ. জেমস এর হিসাবে এবং পৃথিবীতে থাকা তার আত্মীয়দের হিসাবে নক্ষত্রটিকে পৌছাতে তার কত সময় লাগবে তা নির্ণয় কর।
ঘ. তার পিতা-মাতার চেয়ে বয়সে বড় হতে চাইলে জেমসকে কী করতে হতো তা আপেক্ষিক তত্তের সাহায্যে ব্যাখ্যা কর।

সাজেশন সম্পর্কে প্রশ্ন ও মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে Google News <>YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

বর্তনীতে তড়িৎ প্রবাহের ক্ষেত্রে বর্তনীর উপাদানগুলাের ভূমিকা বিশ্লেষণ।

বর্তনীতে তড়িৎ প্রবাহের ক্ষেত্রে বর্তনীর উপাদানগুলাের ভূমিকা বিশ্লেষণ, Fig-1 এর বর্তনীতে কার্শফের সূত্র ২টি কীরূপ হবে চিত্রসহ দেখাও https://www.banglanewsexpress.com/

(ক) Fig-1 এর বর্তনীতে কার্শফের সূত্র ২টি কীরূপ হবে চিত্রসহ দেখাও।

(খ) V ব্যাটারির প্রান্ত পরিবর্তন করে সংযােগ দিলে তড়িৎ প্রবাহের কীরূপ পরিবর্তন হবে চিত্র এঁকে দেখাও। এবার আরেকটি বর্তনী নিয়ে চিন্তা করা যাক।। মনেকরাে, বর্তনীতে একটি বাল্ব ২টি ব্যাটারির সাথে সংযুক্ত রয়েছে। ব্যাটারি ২ টির তড়িচ্চালক বলের মান 12V, এদের অভ্যন্তরীণ রােধ 0.50, বর্তনীর বহিস্থ রােধ 4.5 )

(গ) বর্তনীটিতে ব্যাটারির শ্রেণি সংযােগের ক্ষেত্রে তড়িৎ প্রবাহ নির্ণয় করাে।

(ঘ) বর্তনীর বাল্বটির অভ্যন্তরীণ রােধ r হলে ব্যাটারির শ্রেণি ও সমান্তরাল সমবায়ের কোন ক্ষেত্রে বাল্বটি বেশি উজ্জ্বল হবে?

(ঙ) কোন শর্তে ব্যাটারির দুই রকম সমবায়ের ক্ষেত্রেই বালটি একই রকম উজ্জ্বলতা দিবে?

(চ) যদি প্রবাহমাত্রা 25% হ্রাস পায় বাতিটির উজ্জ্বলতা শতকরা কত অংশ হ্রাস পাবে?

শিখনফল/ বিষয়বস্তুঃ

অভ্যন্তরীণ রােধ এবং তড়িচ্চালক বলের গাণিতিক সম্পর্ক বিশ্লেষণ করতে পারবে

• বর্তনীতে কোষের শ্রেণি ও সমান্তরাল সমন্বয় সংযােগ ব্যাখ্যা করতে পারবে

• কার্শফের সূত্র ব্যবহার করে বর্তনীর তড়িৎ প্রবাহ ও বিভব পার্থক্য নির্ণয় করতে পারবে

নির্দেশনা (সংকেত?ধাপ/পরিধি)ঃ

(ক) এর সমাধানের ক্ষেত্রে রােধের সময় ও X ও Y জাংশন বিন্দু ব্যবহার করতে হবে এবং চিত্র এঁকে নিতে

(খ) এর ক্ষেত্রে। রােধের সমবায় করে নিতে হবে।

উত্তরঃ লিংক

(ক) এন্ট্রপির মাধ্যমে তাপগতিবিদ্যার ২য় সূত্র লেখ। তিন প্রক্রিয়ায় [(১) পরিবহন (২) পরিচলন ও (৩) বিকিরণ] তাপের সঞ্চালনের ক্ষেত্রে এন্ট্রপি বৃদ্ধি পায় নাকি হ্রাস পায়? উত্তরের পক্ষে গাণিতিক যুক্তি বিশ্লেষণ করাে।


(খ) ধরাে তুমি 27° C তাপমাত্রায়, স্বাভাবিক চাপের এক গ্রাম হাইড্রোজেন গ্যাসের আয়তন সমােষ্ণ প্রক্রিয়ায় প্রসারিত করে চারগুণ করলে। এতে এন্ট্রপির পরিবর্তন নির্ণয় করাে।


(গ) সমােষ্ণ প্রক্রিয়ার প্রসারিত করার ক্ষেত্রে চাপের পরিবর্তন হবে কি না-ব্যাখ্যা করাে। হাইড্রোজেন গ্যাসের এই প্রসারণে কৃত কাজের মান নির্ণয় করাে।


(ঘ) সমচাপ প্রক্রিয়ায় এক গ্রাম হাইড্রোজেন গ্যাসের আয়তন চার গুণ প্রসারণে এনট্রপির পরিবর্তন হবে কিনা তা নির্ণয় করে দেখাও। সমচাপ ও সমােষ্ণ প্রক্রিয়ায় গ্যাসের এই আয়তন প্রসারণে এন্ট্রপির পরিবর্তনের তুলনা করাে।


(ঙ) কার্নোর চক্রকে তাপমাত্রা বনাম এন্ট্রপি লেখচিত্রের সাহায্যে অংকন করে এর বিভিন্ন ধাপ ব্যাখ্যা করাে।


(চ) Fig: 1 এর ক্ষেত্রে এন্ট্রপির পরিবর্তন এবং Fig: 2 এর ক্ষেত্রে অভিকর্ষ বল দ্বারা কাজ অবস্থানান্তরের জন্য নির্বাচিত পথের উপর নির্ভর করে কিনা? উত্তরের পক্ষে যুক্তি চিত্রের আলােকে গাণিতিকভাবে ব্যাখ্যা করাে।

উত্তরঃ লিংক

(ক) একটি সমান্তরাল পাত ধারকের দুই প্রান্ত V তড়িৎ চালক বিশিষ্ট একটি ব্যাটারির দুই প্রান্তে লাগানাে হলাে। ধারকটির ধারকত্ব c ও প্রতিটি পাতের ক্ষেত্রফল A হলে প্রতিটি পাতে কত মানের চার্জ জমা হবে?

(খ) এই প্রক্রিয়ায় ব্যাটারি হতে কতটুকু শক্তি ব্যয় হবে?

(গ) ধারকে সঞ্চিত শক্তির মান কত ?

(ঘ) তােমার দেওয়া  ও  এর উত্তর ভিন্ন হলে, এর কারণ ব্যাখ্যা করাে। যদি ভিন্ন না হয়, তবে তাও ব্যাখ্যা করাে।

(ঙ) চার্জিত হওয়ার পর ধারকটিকে ব্যাটারি বিযুক্ত করা হলাে এবং পায়ের মাঝের দুরত্ব দ্বিগুণ করা হলাে । ধারকটির পতিদ্বয়ের মাঝে এই অবস্থায় বিভব পার্থক্য কত?

(চ) শেষােক্ত অবস্থায় থাকে কতটুকু শক্তি সঞ্চিত আছে ?

(ছ) এবারে শক্তির মান ভিন্নতার কারণ ব্যাখ্যা করাে। একটি ম্প্রিংয়ের প্রসারণ এর সাথে তুলনা করে তােমার উত্তরের যথার্থতা ব্যাখ্যা করাে।

নির্দেশনাঃ

স্থির তড়িৎ অধ্যায়

ক) চার্জ পরিমাপ

খ) ব্যয়িত শক্তির পরিমাপ

গ) সঞ্চিত শক্তির পরিমাপ খ) ও গ) উত্তরের ব্যাখ্যা

ঘ) বিভক পার্থক্য পরিমাপ শক্তির পরিমাপ শক্তির মান ভিন্নতার কারন নিচে দেওয়া হলো।

উত্তরঃ লিংক

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

  • অধ্যায় এক তাপ গতিবিদ্যা
  • তাপীয় সমতা কি?
  • তাপ গতিবিদ্যার শূন্যতম সূত্রটি কি?
  • পানির ত্রৈধ বিন্দুর সংজ্ঞা দাও
  • রুদ্ধতাপীয় প্রক্রিয়া কি?
  • তাপীয় সিস্টেম কি?
  • অন্তঃস্থ শক্তি কি?
  • প্রত্যাগামী প্রক্রিয়া কাকে বলে?
  • অপ্রত্যাবর্তী প্রক্রিয়া কাকে বলে?
  • কার্নো চক্র কি?
  • তাপ ইঞ্জিনের দক্ষতা কি?
  • এনট্রপি কি?
  • অধ্যায় 2 স্থির তড়িৎ
  • চার্জের তল ঘনত্ব কাকে বলে?
  • বিন্দু চার্জ কাকে বলে?
  • এক ইলেকট্রন ভোল্ট কাকে বলে?
  • সমবিভব তল কি? banglanewsexpress.com
  • তড়িৎ দ্বিমেরু কাকে বলে?
  • তড়িৎ দ্বিমেরু ভ্রামক কাকে বলে?
  • চার্জের কোয়ান্টায়ন কাকে বলে?
  • পরাবিদ্যুৎ/ ডাইইলেকট্রিক মাধ্যম কি?
  • তড়িৎ মাধ্যমাঙ্ক কি?
  • পরাবৈদ্যুতিক ধ্রুবক কি?
  • তড়িৎ ধারকত্ব কি?
  • গসিয়ান তল কাকে বলে?
  • গসের সূত্র বিবৃত করো
  • অধ্যায় 3 চল তড়িৎ
  • ওহমের সূত্রটি লেখ
  • ১ ওহম রোধ কাকে বলে?
  • আপেক্ষিক রোধ কাকে বলে?
  • রোধের উষ্ণতা গুণাঙ্ক কাকে বলে?
  • অতি পরিবাহিতা কাকে বলে?
  • জুলের রোধের সূত্রটি বিবৃত করো
  • এক অ্যাম্পিয়ার প্রবাহের সংজ্ঞা দাও
  • তারন বেগ কাকে বলে?
  • তড়িৎচালক বল কাকে বলে?
  • শান্ট কাকে বলে?
  • banglanewsexpress.com
  • মিটার ব্রিজ কি?
  • অধ্যায় 4 তড়িৎ প্রবাহের চৌম্বক ক্রিয়া ও চুম্বকত্ব
  • বায়োট-স্যাভার্ট এর সূত্রটি বিবৃত করো
  • অ্যাম্পিয়ারের সূত্রটি লিখ
  • টেসলা কাকে বলে?
  • লরেঞ্জ বল কি?
  • হল ক্রিয়া কি?
  • হল বিভব কাকে বলে?
  • হল বিভব পার্থক্য কাকে বলে?
  • চৌম্বক ভ্রামক কাকে বলে?
  • ভূ চুম্বক অর্থ কি?
  • চৌম্বক মধ্যতল কি?
  • বিনতি কি?
  • কুরী বিন্দু কি?
  • চৌম্বক নিগ্রহীতা কাকে বলে?
  • অধ্যায় 5 তাড়িত চৌম্বকীয় আবেশ ও পরিবর্তী প্রবাহ
  • তাড়িতচৌম্বকীয় আবেশ কি?
  • আবিষ্ট তড়িচ্চালক বল কাকে বলে?
  • ফ্যারাডের দ্বিতীয় সূত্রটি লিখ
  • লেঞ্জের সূত্রটি লিখ
  • banglanewsexpress.com
  • স্বকীয় আবেশ কি?
  • স্বকীয় আবেশ গুণাঙ্ক কাকে বলে?
  • হেনরি কাকে বলে?
  • পারস্পরিক আবেশ কাকে বলে?
  • পারস্পরিক আবেশ গুণাঙ্ক কাকে বলে?
  • দিক পরিবর্তী প্রবাহ কি?
  • অধ্যায় 6 জ্যামিতিক আলোকবিজ্ঞান
  • আলোর প্রতিসরণ কাকে বলে?
  • স্কেলের সূত্রটি লিখ
  • পরম প্রতিসরণাঙ্ক কি?
  • আলোক পথ কাকে বলে?
  • ফার্মাটের নীতি বিবৃত করো
  • আলোক কেন্দ্র কি?
  • banglanewsexpress.com
  • কৌণিক বিবর্ধন কাকে বলে?
  • ন্যূনতম বিচ্যুতি কোণ কাকে বলে?
  • সরু প্রিজম কাকে বলে?
  • আলোকের বিচ্ছুরণ কি?
  • অধ্যায় 7 ভৌত আলোকবিজ্ঞান
  • তড়িৎ চুম্বকীয় তরঙ্গ কি?
  • পয়েন্টিং ভেক্টর কাকে বলে?
  • তরঙ্গ মুখ কাকে বলে?
  • হাই গেনসের নীতিটি লিখ
  • আলোর ব্যতিচার কি?
  • গঠনমূলক ব্যতিচার কাকে বলে?
  • অপবর্তন কাকে বলে?
  • অপবর্তন গ্রেটিং কি?
  • আলোর সমবর্তন কি? banglanewsexpress.com
  • গ্রেটিং ধ্রুবক কাকে বলে?
  • আলোর সমবর্তন কি?
  • অসমবর্তিত আলো কাকে বলে?
  • ম্যালাস এর সূত্রটি লিখ
  • অধ্যায় 8 আধুনিক পদার্থবিজ্ঞানের সূচনা
  • জড় কাঠামো কাকে বলে?
  • আইনস্টাইনের দ্বিতীয় স্বীকার্য টি বর্ণনা করো
  • কাল দীর্ঘায়ন কাকে বলে?
  • দৈর্ঘ্য সংকোচন কাকে বলে?
  • এক্সরে কি?
  • আলোকতড়িৎ ক্রিয়া কাকে বলে?
  • ফোটন কি?
  • সূচন তরঙ্গদৈর্ঘ্য কাকে বলে?
  • সূচন কম্পাঙ্ক কি?
  • নিবৃত্তি বিভব কাকে বলে?
  • কার্যাপেক্ষক কাকে বলে?
  • কম্পটন ক্রিয়া বা প্রভাব কি?
  • অধ্যায় 9 পরমাণুর মডেল এবং নিউক্লিয়ার পদার্থবিজ্ঞান
  • নিউক্লিয়ন কি? banglanewsexpress.com
  • পারমাণবিক ভর একক কি?
  • আইসোটোপ কি?
  • তেজস্ক্রিয় ক্ষয় সূত্রটি লিখ
  • ক্ষয় ধ্রুবক কাকে বলে?
  • অর্ধায়ু কাকে বলে?
  • গড় আয়ু কি?
  • ভর ত্রুটি কি?
  • বন্ধন শক্তি কি?
  • শৃংখল বিক্রিয়া কাকে বলে?
  • নিউক্লিয় ফিউশন কি?
  • নিউক্লিয় ফিউশন কাকে বলে?
  • অধ্যায় 10 সেমি কন্ডাক্টর ও ইলেকট্রনিক্স
  • শক্তি ব্র্যান্ড কাকে বলে?
  • অর্ধপরিবাহক কি?
  • ডোপিং কি? banglanewsexpress.com
  • P-টাইপ অর্ধপরিবাহী কাকে বলে?
  • এন টাইপ অর্ধপরিবাহী কাকে বলে?
  • পি এন জাংশন কাকে বলে?
  • সম্মুখ ঝোঁক কাকে বলে?
  • জেনার ভোল্টেজ কাকে বলে?
  • ব্রেকডাউন ভোল্টেজ কাকে বলে?
  • রেকটিফায়ার কাকে বলে?
  • ট্রানজিস্টর কাকে বলে?
  • প্রবাহ বিবর্ধক গুণক কাকে বলে?
  • হেক্সাডেসিমেল নম্বর পদ্ধতি কাকে বলে?
  • অধ্যায় 11 জ্যোতির্বিজ্ঞান
  • বিগ ব্যাং কি?
  • banglanewsexpress.com
  • কোয়ার্ক কি?
  • কোয়াশার কি?
  • কৃষ্ণ গহবর কি?
  • সোয়ার্জস্কাইন্ড ব্যাসার্ধ কাকে বলে?
  • ঘটনা দিগন্ত কি?
  • অদৃশ্য বস্তু কাকে বলে? নেবুলা কি?
  • নেবুলা কি?
  • কৃষ্ণ বিবর কাকে বলে?
  • সুপার নোভা কি?
  • চন্দ্রশেখর সীমা কি?
  • রেডিও টেলিস্কোপ কি?

[ বি:দ্র:এই সাজেশন যে কোন সময় পরিবতনশীল ১০০% কমন পেতে পরিক্ষার আগের রাতে সাইডে চেক করুন এই লিংক সব সময় আপডেট করা হয় ]

HSC Physics 2nd paper Question With Answer Model Question 1

সবার আগে সাজেশন আপডেট পেতে Follower ক্লিক করুন

সাজেশন সম্পর্কে প্রশ্ন ও মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে Google News <>YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *