দুতরফা এবং একতরফা দাখিলা পদ্ধতির প্রয়ােগ, ১ সাবিনা এন্টারপ্রাইজ দুতরফা দাখিলা পদ্ধতি অনুসারে প্রতিটি হিসাব সংরক্ষণ করে থাকে

দুতরফা এবং একতরফা দাখিলা পদ্ধতির প্রয়ােগ, ১ সাবিনা এন্টারপ্রাইজ দুতরফা দাখিলা পদ্ধতি অনুসারে প্রতিটি হিসাব সংরক্ষণ করে থাকে

এসএসসি পরীক্ষা প্রস্তুতি শিক্ষা
শেয়ার করুন:

অ্যাসাইনমেন্ট শিরোনাম: দুতরফা এবং একতরফা দাখিলা পদ্ধতির প্রয়ােগ-

সহায়ক তথ্য- ১ সাবিনা এন্টারপ্রাইজ দুতরফা দাখিলা পদ্ধতি অনুসারে প্রতিটি হিসাব সংরক্ষণ করে থাকে ২০২০ সালের মে মাসে ব্যবসায় সংঘটিত লেনদেনসমূহ নিম্নরূপ:

মে ৫ চেকের মাধ্যমে পণ্য বিক্রয় ১০,০০০ টাকা;

মে ১৫ অগ্রিম ভাড়া প্রদান ১২,০০০ টাকা;

মে ২২ মালিক ব্যবসায় হতে ৫,০০০ টাকার পণ্য উত্তোলন করল;

মে ৩০ ব্যাংক সুদ মঞ্জুর করল ১,০০০ টাকা;

সহায়ক তথ্য- 

তাওসিফ ব্রাদার্স বিস্তারিত হিসাব সংরক্ষণ করে না। ২০২০ সালের ১ জানুয়ারিতে তার মােট সম্পদ ও দায়ের পরিমাণ যথাক্রমে ৫,৩০,০০০ টাকা ও ২,৯০,০০০ টাকা। উক্ত বছরে মালিক ব্যবসায় আরও ৮০,০০০ টাকা বিনিয়ােগ করে এবং ব্যক্তিগত প্রয়ােজনে ৬৫,০০০ টাকা উত্তোলন করে।

৩১ ডিসেম্বর ২০১০ তারিখে ব্যবসায় নিম্নোক্ত সম্পদ ও দায়সমূহ ছিলঅফিস সরঞ্জাম ১,৫০,০০০ টাকা; প্রাপ্য হিসাব ৮০,০০০ টাকা; মজুদ পণ্য ৭০,০০০ টাকা; ব্যাংক জমা ৫০,০০০ টাকা; বিনিয়ােগ ২,০০,০০০ টাকা; প্রদেয় হিসাব ৫০,০০০ টাকা, ঋণ ২,০০,০০০ টাকা; বকেয়া বেতন ১০,০০০ টাকা।

নির্দেশনা (সংকেত/ধাপ/পরিধি);

• দুতরফা দাখিলা পদ্ধতির সুবিধাসমূহ ব্যাখ্যাকরণ;

• লেনদেনের ডেবিট ক্রেডিট নির্ণয়;

• হিসাবচক্রের ধাপসমূহ বর্ণনাকরণ;

• একতরফা দাখিলা পদ্ধতিতে লাভ-ক্ষতি নির্ণয়;

এসাইনমেন্ট সম্পর্কে যে কোন প্রশ্ন আপনার মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

ক. দুতরফা দাখিলা পদ্ধতির সুবিধাসমূহ ব্যাখ্যা;

প্রশ্ন-ক এর উত্তর

সঠিকভাবে হিসাব প্রণয়নের জন্য যে ব্যবস্থায় লেনদেন সমূহের দৈত্বসত্তা যথাযথভাবে লিপিবদ্ধ করা হয় তাকে দুতরফা দাখিলা পদ্ধুতি বলে। দুতরফা দাখিলা হিসাব পদ্ধুতি হচ্ছে একটি পূর্ণাঙ্গ নির্ভরযোগ্য, বিজ্ঞানসম্মত ও স্বয়ংসম্পূর্ণ একটি পদ্ধুতি।এ হিসাব পদ্ধুতির বিভিন্ন সুবিধা রয়েছে। এর সুবিধা নিচে বর্ণনা করা হল:

১. পরিপূর্ণ হিসাব সংরক্ষণ: প্রতিটি লেনদেনকে ডেবিট ও ক্রেডিট বিশ্লেষণ করে সমপরিমাণ টাকায় লিপিবদ্ধ করে লেনদেনের পরিপূর্ণ হিসাব রাখা হয়।

২. লাভ-লোকসান নিরূপন: এ পদ্ধুতিতে ব্যবসায়ের মুনাফা জাতীয় আয়-ব্যয়ের পরিপূর্ণ ও সঠিক হিসাব করে ব্যবসায়ের নিট মুনাফা বা নিট লোকসান নির্ণয় করা যায়।

৩. গানিতিক শুদ্ধতা যাচাই: প্রতিটি লেনদেনের ডেবিট পক্ষের বিপরীতে সমপরিমান অঙ্কের ক্রেডিট দাখিলা করতে হয় তাই হিসাবের গানিতিক শুদ্ধতা যাচাই করা যায়।

৪. ভুল-ত্রুটি ও জালিয়াতি প্রতিরোধ: এ পদ্ধুতিতে হিসাব সংরক্ষণ করলে খুব সহজেই ভুল-ত্রুটি ও জালিয়াতি প্রতিরোধ করা যায়।

৫. ব্যয় নিয়ন্ত্রণ : এ পদ্ধুতিতে অতিরিক্ত ব্যয় নিয়ন্ত্রণ করা য়ায়।

৬. দেনাপাওনার পরিমান : এ পদ্ধুতিতে হিসাব রাকার ফলে ব্যবসায়ের মালিক তার মোট দেনা-পাওনা পরিমান চিহ্নিত করা যায়।

৭.আর্থিক অবস্থা নিরুপণ: একটি নিদিষ্ট তারিখে আর্থিক অবস্থার বিবরণী তৈরির মাধ্যমে কারবারের আর্থিক অবস্থা নির্ণয় করা যায়।

৮.সার্বজনীন স্বীকৃতি: দুতরফা দাখিলা পদ্ধুতি একটি বিজ্ঞানসম্মত, পূর্নাঙ্গ, র্নিভুল, সয়ং সম্পূর্ণ ও নির্ভরযোগ্য পদ্ধুতি বিধায় সমগ্র বিশ্বে এ পদ্ধুতি সার্বজনীন পদ্ধুতি হিসেবে গ্রহণ যোগ্যতা পেয়েছে।

অতএব বলা যায় দুতরফা দাখিলা পদ্ধুতির সুবিধার কারণে বড় বড় ব্যবসায়িত প্রতিষ্ঠানের হিসাব সংরক্ষনের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

খ. লেনদেনের ডেবিট ক্রেডিট নির্ণয়;

প্রশ্ন-খ এর উত্তর

সাবিনা এন্টারপ্রাইজ এর সাধারণ জাবেদা

দুতরফা এবং একতরফা দাখিলা পদ্ধতির প্রয়ােগ, ১ সাবিনা এন্টারপ্রাইজ দুতরফা দাখিলা পদ্ধতি অনুসারে প্রতিটি হিসাব সংরক্ষণ করে থাকে https://www.banglanewsexpress.com/

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

গ. হিসাবচক্রের ধাপসমূহ বর্ণনাকরণ;

প্রশ্ন-গ এর উত্তর

চিত্রসহ হিসাবচক্রের ৮টি ধাপের সংক্ষিপ্ত বর্ণনা করা হল:

দুতরফা এবং একতরফা দাখিলা পদ্ধতির প্রয়ােগ, ১ সাবিনা এন্টারপ্রাইজ দুতরফা দাখিলা পদ্ধতি অনুসারে প্রতিটি হিসাব সংরক্ষণ করে থাকে https://www.banglanewsexpress.com/

চলমান ধারণা অনুযায়ী ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম অনন্তকাল ধরে চলতে থাকবে বলে অনুমান করা হয়। ব্যবসায়ের ‍হিসাব সংরক্ষণের ধারাবাহিক আর্বতনকেই হিসাবচক্র বলে।

১. লেনদেন শনাক্তকরণ: হিসাব চক্রের প্রথমধাপে ব্যবসায়ের প্রতিটি ঘটনাকে বিশ্লেষণ করে লেনদেন হিসেবে চিহ্নিত  করা।

২. লেনদেন বিশ্লেষণ: প্রতিটি লেনদেন বিশ্লেষণ করে সংশ্লিষ্ট হিসাব খাতগুলো চিহ্নিত করা হয়।

৩.জাবেদা ভুক্তকরণ: বিশ্লেষণকৃত হিসাব খাত গুলো দুতরফা দাখিলা অনুসারে প্রযোজ্য হিসাবের প্রাথমিক বইতে ডেবিট-ক্রেডিট বিশ্লেষণ করে তারিখের ক্রমানুসারে জাবেদায় লিপিবদ্ধ করা হয়।

৪. খতিয়াণের স্থানান্তর : এই ধাপে জাবেদায় লিপিবদ্ধকৃত লেনদেনগুলো আলাদা শিরোনামে লিপিবদ্ধ করা হয়।

৫. রেওয়ামিল প্রস্তুতকরণ: লেনদেনসমূহ নির্ভুলভাবে হিসাব বহিতে লিপিবদ্ধহয়েছে কি না তা যাচাই করার উদ্দেশ্যে খতিয়ানের ডেবিট উদ্ধৃত ও ক্রেডিট উদ্ধৃত্তের সাহায্যে রেওয়ামিল প্রস্তুত করা হয়।

৬.সমন্বয় দাখিলা :ব্যবসায়ের প্রকৃত আর্থিক অবস্থা নির্ণয়ের জন্য সংশ্লিষ্ট হিসাব কালের প্রাপ্য আয়,বকেয়া খরচ, অগ্রিম খরচ এবং অনুপার্জিত আয় ইত্যাদি দফাগুলোকে সমন্বয় দাখিলা প্রদান করা হয়।

৭. কার্যপত্র প্রস্তুত: আর্থিক বিবরণী প্রস্তুতে সহজতর করার জন্য ঐচ্ছিক কাজ হিসেবে বহুঘরবিশিষ্ট একটি বিবরণী প্রস্তুত করা হয়।

৮. আর্থিক বিবরণী : আর্থিক বিবরনী প্রস্তুত করার মাধ্যমে ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানের লাভ-ক্ষতি, সম্পদ, দায় ও মালিকানা স্বত্বের পরিমান নির্ণয় করা হয়।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

ঘ. একতরফা দাখিলা পদ্ধতিতে লাভ-ক্ষতি নির্ণয়;

প্রশ্ন-(ঘ) এর উত্তর

তাওসিফ ব্রাদার্স এর প্রারম্ভিক মুলধন নির্ণয়:

প্রারম্ভিক মুলধন = (প্রারম্ভিক মোট সম্পদ) – (প্রারম্ভিক মোট দায়)

= ৫,৩০,০০০-২,৯০,০০০

= ২,৮০,০০০ টাকা

তাওসিফ ব্রাদার্স এর সমাপনী মুলধন নির্ণয়:

সমাপনী মুলধন  = (সমাপনী মোট সম্পদ) – (সমাপনী মোট দায়)

= (অফিস সরঞ্জাম+মজুদ পণ্য+প্রাপ্য হিসাব+ব্যাংক জমা+বিনিয়োগ) –(বকেয়া বেতন+ঋণ+প্রদেয় হিসাব) 

= (১,৫০,০০০+৭০,০০০+৮০,০০০+৫০,০০০+২,০০,০০০) – (১০,০০০+২০,০০০+৫০,০০০)

= ৫,৫০,০০০ – ২,৬০,০০০

= ২,৯০,০০০

তাওসিফ ব্রার্দাসের লাভ/ক্ষতি নির্ণয়:

লাভ/ক্ষতি  = (সমাপনী মুলধন+উত্তোলন) – ( প্রারম্ভিক মুলধন+অতিরিক্ত মুলধন)

= (২,৯০,০০০+৬৫,০০০) – (২,৮০,০০০+৮০,০০০)

= ৫০০০ (ক্ষতি)

এসাইনমেন্ট সম্পর্কে যে কোন প্রশ্ন আপনার মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

অন্য সকল ক্লাস এর অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর সমূহ :-

  • ২০২১ সালের SSC / দাখিলা পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২১ সালের HSC / আলিম পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ভোকেশনাল: ৯ম/১০ শ্রেণি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • HSC (বিএম-ভোকে- ডিপ্লোমা-ইন-কমার্স) ১১শ ও ১২শ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ১০ম শ্রেণীর পরীক্ষার্থীদের SSC ও দাখিল এসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ১১ম -১২ম শ্রেণীর পরীক্ষার্থীদের HSC ও Alim এসাইনমেন্ট উত্তর লিংক

৬ষ্ঠ শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ , ৭ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ ,

৮ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ , ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় SSC এসাইনমেন্ট :

বিজ্ঞান ১ম ও ২য় বর্ষের এসাইনমেন্ট, ব্যবসায় ১ম ও ২য় বর্ষের এসাইনমেন্ট, মানবিক ১ম ও ২য় বর্ষের এসাইনমেন্ট

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় HSC এসাইনমেন্ট :

মানবিক ১ম ও ২য় বর্ষের এসাইনমেন্ট, বিজ্ঞান ১ম ও ২য় বর্ষের এসাইনমেন্ট , ব্যবসায় ১ম ও ২য় বর্ষের এসাইনমেন্ট

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *