hsc diploma in commerce 11 class banking & insurance 12th week assignment answer 2021, ২০২১ সালের এইচএসসি ডিপ্লোমা ইন কমার্স ১১শ শ্রেণি ব্যাংকিং ও বিমা ১২তম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান 2021

hsc diploma in commerce 11 class banking & insurance 12th week assignment answer 2021, ২০২১ সালের এইচএসসি ডিপ্লোমা ইন কমার্স ১১শ শ্রেণি ব্যাংকিং ও বিমা ১২তম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান 2021

Assignment এইচ এস সি পরীক্ষা প্রস্তুতি শিক্ষা
শেয়ার করুন:
শ্রেণি: ১১শ / HSC ইন কমার্স/ 2021 বিষয়:ব্যাংকিং ও বিমা এসাইনমেন্টেরের উত্তর 2021
এসাইনমেন্টের ক্রমিক নংঃ 08 বিষয় কোডঃ 1715
বিভাগ: ভোকেশনাল শাখা
বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস// https://www.banglanewsexpress.com/

এসাইনমেন্ট শিরোনামঃ বাংলাদেশের প্রশাসনিক কাঠামো।

অ্যাসাইনমেন্ট/ শিরো নাম : বীমার ধারনা ও প্রচলিত বিভিন্ন প্রকার বীমা

শিখনফল/বিষয়বস্তু :

  • ঝুঁকি হ্রাস করতে কেন বীমা করতে হয় ও এর গুরুত্ব জানতে পারবে।,
  • বীমা প্রতিষ্ঠান ও বীমা গ্রহীতা কিভাবে বীমা প্রিমিয়াম নির্ধারন করে তা ব্যাখ্যা করতে পারবে,
  • উন্নয়নশীল দেশে বীমার গুরুত্ব বর্ণনা করতে পারবে, 
  • বীমা দাবি প্রাপ্তির জন্য গ্রাহককে কোন কোন কাজ করতে হয় তা ব্যাখ্যা করতে পারবে।,

নির্দেশনা :  

  • বীমার ধারনা ও প্রয়ােজনীয়তা ব্যাখ্যা করবে,
  • কিভাবে বীমা প্রিমিয়াম নির্ধারণ করা হয় তা আলােচনা করবে,
  • বাংলাদেশে কোন কোন বীমা চালু আছে তা বর্ণনা করবে,
  • বীমা দাবি আদায়ের পদ্ধতি ব্যাখ্যা করবে,

এসাইনমেন্ট সম্পর্কে প্রশ্ন ও মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে Google News <>YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

  • বীমার ধারনা ও প্রয়ােজনীয়তা ব্যাখ্যা করবে,

প্রযুক্তিগত ভাষায়, এটি ঝুঁকি ব্যবস্থাপনার একধরণের যাতে বিমাপ্রাপ্ত সত্তা সামান্য আর্থিক ক্ষতিপূরণের বিনিময়ে সম্ভাব্য ক্ষতির ব্যয় অন্য সত্তায় স্থানান্তর করে।

এই ক্ষতিপূরণ হিসাবে বলা হয়প্রিমিয়াম। সহজ কথায় বলতে গেলে, এটি ভবিষ্যতের সম্ভাব্য ক্ষতির হাত থেকে নিজেকে সুরক্ষিত করার জন্য সত্তাকে একক অঙ্কের অর্থ প্রদানের মতো। সুতরাং, যখন কোনও দুর্ভাগ্যের কোনও ঘটনা ঘটে, তখন বীমাকারী আপনাকে পরিস্থিতিটি পেতে সহায়তা করে।

সবার মনে এই প্রশ্ন আছে has আমার কি সত্যিই সুরক্ষা দরকার? জীবন চমকে পূর্ণ; কিছু ভাল, কিছু খারাপ। আপনার কাছে আসতে পারে এমন সবচেয়ে খারাপ পরিস্থিতির জন্য আপনাকে প্রস্তুত থাকা দরকার। এটি আপনাকে সেই সুরক্ষা এবং শান্তির বোধ তৈরি করতে সহায়তা করে।

অনেকগুলি কারণ থাকতে পারে যেখানে আপনার সাহায্যের প্রয়োজন হতে পারে, যেমন গুরুতর অসুস্থতা, প্রাকৃতিক দুর্যোগ, প্রিয়জনের অপ্রত্যাশিত মৃত্যু ইত্যাদি। এ জাতীয় পরিস্থিতিতে পর্যাপ্ত পরিমাণে বীমা করা আপনার আর্থিক অবস্থার জন্য গুরুত্বপূর্ণ সাহায্যের হাত সরবরাহ করে। সুতরাং, একজনকে তাদের প্রয়োজন অনুযায়ী সঠিক ধরণের সুরক্ষা বেছে নিতে হবে।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

  • কিভাবে বীমা প্রিমিয়াম নির্ধারণ করা হয় তা আলােচনা করবে,

বীমা চুক্তিতে বীমাকারী বীমা গ্রহীতাকে ক্ষতিপূরণ বা দাবী পরিশোধের প্রতিশ্রুতির প্রতিদানই হচ্ছে বীমা প্রিমিয়াম। জীবন বীমার ক্ষেত্রে বীমাগ্রহীতা বীমাকারী/বীমা কোম্পানীকে প্রিমিয়াম প্রদানের ফলেই বীমাসংস্থা নির্দিষ্ট মেয়াদ পূর্তিতে বা মেয়াদ পূর্তির আগেই বীমাকৃত ব্যক্তির মৃত্যু হলে বীমা দাবী পরিশোধ করে থাকে। বিশেষজ্ঞগণের বিভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি বিশ্লেষণে প্রিমিয়ামের সংজ্ঞা নিম্নরূপ:

“বীমাচুক্তি বলে বীমাকারী বীমা গ্রহীতার নিজের বা অন্যের জীবন অথবা সম্পত্তির উপরে ভবিষ্যতে সম্ভাব্য কোন অনিশ্চয়তা বা বিপদজনিত আর্থিক ক্ষতি লাঘব বা পূরণ করে দেয়া অথবা যথারীতি বীমা দাবি পরিশোধের প্রতিশ্রুতি প্রদানের বিনিময়ে বীমা গ্রহীতার কাছ থেকে নির্দিষ্ট হারে বা নির্দিষ্ট সময় পর পর একটি নির্দিষ্ট মেয়াদ পর্যন্ত অথবা এককালীন অর্থ গ্রহণ করে, তাকেই বীমার কিস্তি বা প্রিমিয়াম বলা হয় ।”

জীবন বীমার ক্ষেত্রে সাধারণতঃ বার্ষিক কিস্তিতে প্রিমিয়াম সংগৃহীত হয়ে থাকে। তবে বীমা গ্রহীতার সুবিধার্থে ষান্মাসিক, ত্রৈমাসিক এমন কি মাসিক প্রিমিয়াম প্রদানের ব্যবস্থাও রয়েছে।    

বীমা আইন, ২০১০ অনুসারে বীমার প্রিমিয়াম নির্ধারণ করবেন অ্যাকচ্যুয়ারি। যে সমস্ত বিষয়ের উপর নির্ভর করে প্রিমিয়াম নির্ধারণ করা হয় তা হলো: বীমা অংক, বীমার মেয়াদ, বীমা গ্রাহকের বয়স, অফিস খরচ, Mortality Table, কমিশন খরচ ইত্যাদি।  

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

  • বাংলাদেশে কোন কোন বীমা চালু আছে তা বর্ণনা করবে,

জীবন বীমা কর্পোরেশনে চালু কৃত বীমা পরিকল্পনা গুলো হলো:

০১.     আজীবন বীমা (লাভসহ) 

০২.     মেয়াদী বীমা (লাভসহ)  

০৩.     প্রগতিশীল মেয়াদী বীমা (লাভসহ)

০৪.     প্রত্যাশিত মেয়াদী বীমা (লাভসহ)

০৫.     বহু কিস্তি বীমা (লাভসহ)

০৬.     ম্যারেজ এন্ডাওমেন্ট পলিসি       

০৭.     যুগ্ম মেয়াদী বীমা        

০৮.     শিশু নিরাপত্তা বীমা      

০৯.     দ্বৈত নিরাপত্তা মেয়াদী   

১০.     পেনশন বীমা   

১১.     স্বাস্থ্য বীমা      

১২.     একক প্রিমিয়াম পলিসি (লাভসহ)

১৩.     ট্রিপল  প্রটেকশন পলিসি

১৪.     ওভারসিস এসুরেন্স পলিসি (লাভসহ)      

১৫.     আজীবন বীমা (লাভ বিহীন)      

১৬.     মেয়াদী বীমা (লাভ বিহীন)       

১৭.     প্রত্যাশিত মেয়াদী বীমা (লাভ বিহীন)     

১৮.     ওভারসিস মেডিক্লেইম পলিসি    

১৯.     স্ব-নির্ভর বীমা (লাভ বহিীন)      

২০.     সম্পত্তি কর বীমা (লাভ বিহীন)   

২১.     ছেলে মেয়েদের শিক্ষা  ও বিবাহ বীমা (লাভসহ)   

২২.     নিশ্চিত বোনাস মেয়াদী বীমা     

২৩.     মানি ব্যাক টার্ম পলিসি (লাভ বিহীন)      

২৪.     সাময়িক বীমা (লাভ বিহীন)      

২৫.     স্ব-নির্ভর বীমা (একক প্রিমিয়াম পলিসি)  

২৬.     দারিদ্র বিমোচনে জীবন বীমা স্কিম         

২৭.     প্রবাসী বীমা     

২৮.     জেবিসি মাসিক সঞ্চয়ী স্কিম      

২৯.     জেবিসি প্রত্যাশিত মাসিক সঞ্চয়ী স্কিম    

৩০.     সামাজিক নিরাপত্তা বীমা (লাভসহ)        

৩১.     প্রমিলা ডিপিএস (লাভসহ)        

৩২.     হজ্জ্ব বীমা (লাভসহ)      

৩৩.     গ্রামীণ জীবন বীমা  (লাভসহ)    

৩৪.     বন্ধকী নিরাপত্তা বীমা (মর্টগেজ প্রটেকশন পলিসি)

জীবন বীমা

জীবন সুরক্ষা হ’ল বিমার অন্যতম traditionalতিহ্যবাহী রূপ যা আপনাকে এবং আপনার প্রিয়জনদের আকস্মিক বিপর্যয় বা দুর্যোগ থেকে রক্ষা করার জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। এটি প্রাথমিকভাবে পরিবারের আয়ের সুরক্ষার জন্য ডিজাইন করা হয়েছিল।

তবে তখন থেকে, এটি সম্পদ সংরক্ষণের বিকল্প হিসাবে কেবল একটি সুরক্ষা ব্যবস্থা হিসাবে বা বিবর্তিত হয়েছেকর পরিকল্পনা। লাইফ কভারের প্রয়োজনীয়তা বিভিন্ন কারণের উপর নির্ভর করে যেমন একজন ব্যক্তির উপর নির্ভরশীলের সংখ্যা, বর্তমান সঞ্চয়,আর্থিক লক্ষ্য প্রভৃতি

2. সাধারণ বীমা

জীবন ব্যতীত যে কোনও ধরণের কভারেজ এই বিভাগের আওতায় আসে। বিভিন্ন ধরণের বীমা রয়েছে যা আপনার জীবনের প্রতিটি দিককে আপনার প্রয়োজন অনুসারে অন্তর্ভুক্ত করে:

ক। স্বাস্থ্য বীমা

এটি আপনার জীবনকালীন সময়ে উদ্ভূত হতে পারে আপনার চিকিত্সা এবং অস্ত্রোপচার ব্যয়গুলি কভার করে। সাধারণত,স্বাস্থ্য বীমা তালিকাভুক্ত হাসপাতালগুলিতে নগদহীন সুবিধা সরবরাহ করে।

খ। মোটর বীমা

এটি বিভিন্ন দৃশ্যের বিপরীতে কোনও গাড়ির (দ্বি-চাকার বা চার চাকার) সাথে যুক্ত ক্ষয়ক্ষতি এবং দায়গুলি কভার করে। এটি গাড়ির ক্ষতির বিরুদ্ধে সুরক্ষা এবং গাড়ির মালিকের বিরুদ্ধে আইন অনুসারে তৃতীয় পক্ষের দায়বদ্ধতার জন্য কভার সরবরাহ করে।

গ। ভ্রমণ বীমা

এটি আপনাকে ভ্রমণের সময় জরুরী অবস্থা বা ক্ষতি থেকে কভার করে। এটি আপনাকে অদেখা চিকিত্সা জরুরী অবস্থা, চুরি বা ব্যাগেজ হ্রাস ইত্যাদির বিরুদ্ধে অন্তর্ভুক্ত করে

ঘ। গৃহ বীমা

এটি নীতির ক্ষেত্রের উপর নির্ভর করে বাড়ী এবং / অথবা ভিতরে থাকা সামগ্রী contentsেকে দেয়। এটি প্রাকৃতিক এবং মনুষ্যনির্মিত বিপর্যয় থেকে ঘর সুরক্ষিত করে।

ঙ। সামুদ্রিক বীমা

এটি ট্রানজিট চলাকালীন সম্ভাব্য ক্ষতি বা ক্ষয়ক্ষতি থেকে পণ্য, কার্গোস ইত্যাদি coversেকে রাখে।

চ। বাণিজ্যিক বীমা

এটি শিল্পের সমস্ত ক্ষেত্র যেমন নির্মাণ, মোটরগাড়ি, খাদ্য, বিদ্যুৎ, প্রযুক্তি, ইত্যাদির সমাধান সরবরাহ করে

ঝুঁকি সুরক্ষা চাহিদা ব্যক্তি থেকে পৃথক পৃথক হতে পারে তবে একটি বীমা পলিসির প্রাথমিক কাজ কমবেশি একই থাকে।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

  • বীমা দাবি আদায়ের পদ্ধতি ব্যাখ্যা করবে,

বীমা চুক্তির শর্তানুযায়ী গ্রাহক ২ (দুই) ধরণের ক্ষেত্রে বীমা দাবি প্রাপ্য হন। এ বীমা দাবী প্রপ্তির জন্য গ্রাহককে নিম্নোক্ত বিষয়াদি সম্পন্ন করতে হবে:

মৃত্যুজনিত বীমা দাবি প্রাপ্তি:  মৃত্যুজনিত বীমা দাবির ক্ষেত্রে বীমা গ্রহীতার বৈধ দাবীদারকে নিম্নোক্ত কাগজ-পত্রাদি বীমাকারীর নিকট দাখিল করতে হয়:

১) বীমা গ্রহীতার মৃত্যুর সময় চিকিৎসারত চিকিৎসকের নিকট থেকে প্রদত্ত মৃত্যুর প্রমাণপত্র, জানাযা/দাহ সনদ, মূল বীমা দলিল, বয়সের প্রমানপত্র।

২) বীমাকারী প্রতিষ্ঠান কর্তৃক সরবরাহকৃত দাবিপত্র, সনাক্তপত্র ও চিকিৎসকের বিবৃতি ফরম পূরণপূর্বক দাখিলকরণ।

বীমা গ্রহীতার বৈধ দাবীদার/নমিনী কর্তৃক বর্ণিত কাগজ-পত্রাদি প্রাপ্তির পর বীমাকারী তার বিধিবদ্ধ মরণোত্তর দাবির নিষ্পত্তির প্রক্রিয়া অনুসরণ করে প্রয়োজনে সরেজমিনে তদন্ত করে তদন্ত রিপোর্ট ইতিবাচক হলে বীমাপত্রের নমিনী বরাবরে নির্বাহী রসিদ প্রেরণ করা হয়।বীমাপত্রের নমিনীকে যথাযথভাবে নির্বাহী রসিদ পূরণ করে বীমাকারীর নিকট ফেরত দিতে হয়। তখন বীমাকারী নমিনীর ব্যাংক এ্যাকাউন্টে এ্যাকাউন্ট পেয়ী চেক প্রেরণ করে। 

মেয়াদোত্তর বীমা দাবি প্রাপ্তি:বীমা গ্রহীতার জীবদ্দশায় বীমা পরিকল্পনা অনুযায়ী বীমার নির্ধারিত সময় সীমা/মেয়াদ অতিক্রান্ত হলে বীমাকৃত অর্থ প্রদাযোগ্য হওয়াই মেয়াদোত্তর দাবি। মেয়াদপূর্তিজনিত বীমা দাবির ক্ষেত্রে বীমা গ্রহীতাকে নিম্নোক্ত কাগজ-পত্রাদি বীমাকারীর নিকট দাখিল করতে হয়:

১) বয়সের প্রমানপত্র (যদি পূর্বে বয়স প্রমাণিত না হয়ে থাকে)

২) স্বত্বের প্রমান (যদি স্বত্ব আরোপিত থাকে)

৩) মূল বীমা দলিল।

মেয়াদপূর্তিজনিত বীমা দাবির ক্ষেত্রে বীমা গ্রহীতা বর্ণিত কাগজ-পত্রাদি বীমাকারীর নিকট দাখিল করলে বীমাকারী বীমা গ্রহীতার বরাবরে নির্বাহী রসিদ প্রেরণ করে।বীমা গ্রহীতা যথাযথভাবে নির্বাহী রসিদ পূরণ করে বীমাকারীর নিকট ফেরত দিতে হয়। তখন বীমাকারী বীমা গ্রহীতার ব্যাংক এ্যাকাউন্টে এ্যাকাউন্ট পেয়ী চেক প্রেরণ করে। 

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

সবার আগে Assignment আপডেট পেতে Follower ক্লিক করুন

এসাইনমেন্ট সম্পর্কে প্রশ্ন ও মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে Google News <>YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

অন্য সকল ক্লাস এর অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর সমূহ :-

  • ২০২১ সালের SSC / দাখিলা পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২১ সালের HSC / আলিম পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ভোকেশনাল: ৯ম/১০ শ্রেণি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ভোকেশনাল ও দাখিল (১০ম শ্রেণির) অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • HSC (বিএম-ভোকে- ডিপ্লোমা-ইন-কমার্স) ১১শ ও ১২শ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ১০ম শ্রেণীর পরীক্ষার্থীদের SSC ও দাখিল এসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ১১ম -১২ম শ্রেণীর পরীক্ষার্থীদের HSC ও Alim এসাইনমেন্ট উত্তর লিংক

৬ষ্ঠ শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ , ৭ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ ,

৮ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ , ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১

বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস// https://www.banglanewsexpress.com/

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় SSC এসাইনমেন্ট :

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় HSC এসাইনমেন্ট :

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *