hsc ভোকেশনাল পদার্থ বিজ্ঞান (২) ১২শ শ্রেণি ৮ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান/ উত্তর ২০২১, পদার্থ বিজ্ঞান (২) ১২শ শ্রেণি ৮ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট hsc ভোকেশনাল সমাধান/ উত্তর ২০২১

hsc ভোকেশনাল পদার্থ বিজ্ঞান (২) ১২শ শ্রেণি ৮ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান/ উত্তর ২০২১, পদার্থ বিজ্ঞান (২) ১২শ শ্রেণি ৮ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট hsc ভোকেশনাল সমাধান/ উত্তর ২০২১

Assignment এইচ এস সি পরীক্ষা প্রস্তুতি শিক্ষা
শেয়ার করুন:
শ্রেণি: HSCভোকেশনাল -2021 বিষয়: পদার্থ বিজ্ঞান (2) এসাইনমেন্টেরের উত্তর 2021
এসাইনমেন্টের ক্রমিক নংঃ 06 বিষয় কোডঃ 82422
বিভাগ: ভোকেশনাল শাখা
বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস// https://www.banglanewsexpress.com/

অ্যাসাইনমেন্ট/ শিরো নাম : প্রিজমে আলোর প্রতিসরণ , বিচ্ছুরণ ব্যাখ্যা কর এবং এর মাধ্যমে প্রিজমের উপাদানের প্রতিসরনাঙ্ক ও নূন্যতম বিচ্যুতি কোনের সম্পর্ক নির্ণয় কর

শিখনফল/বিষয়বস্তু :

  • জ্যামিতিক আলোকবিদ্যা

নির্দেশনা (সংকেত/ ধাপ/ পরিধি): 

  • প্রিজম সম্পর্কে ব্যাখ্যা করতেহবে
  • প্রিজমে আলোর প্রতিসরণ ব্যাখ্যা করতে হবে 
  • প্রিজমে আলোর বিচ্ছুরণ ব্যাখ্যা করতে হবে 
  • প্রিজমের উপাদানের প্রতিসরনাঙ্ক ও নূন্যতম বিচ্যুতি কোনের সম্পর্ক নির্ণয় করতে হবে

এসাইনমেন্ট সম্পর্কে প্রশ্ন ও মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে Google News <>YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

যে বহুতলকের ভূমিতল ও উপরিতল দুইটি পরস্পর সমান্তরাল ও সর্বসম বহুভুজ এবং পার্শ্বতলগুলো সামান্তরিক তাকে প্রিজম বলে। প্রিজম হলো সামান্তরিক পার্শ্বতল বিশিষ্ট এক প্রকার বহুতলক।

একটি প্রিজম চিত্র

আলোকবিজ্ঞানে প্রিজম হলো একটি প্রিজম আকৃতির স্বচ্ছ বস্তু যার মধ্য দিয়ে সাদা আলোকরশ্মি যাবার সময় সাতটি রং এ বিভক্ত হয়ে যায়। ব্যবহার অনুযায়ী এর তলের সংখ্যা ভিন্ন ভিন্ন হয়। প্রিজম সাধারণত কাচের তৈরি হয় ও ত্রিকোণাকৃতির প্রস্থছেদের তবে এটি অন্য যেকোন স্বচ্ছ পদার্থ দিয়েও তৈরি করা যায়।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

এক মাধ্যম থেকে অন্য মাধ্যমে যাবার সময় আলোর গতিপথ পরিবর্তিত হয়। গতিপথ পরিবর্তনের ফলে মাধ্যমদ্বয়ের বিভেদ তলে আলো একটি নির্দিষ্ট কোনে বেঁকে প্রতিসরিত (Huyghens principle), অথবা প্রতিফলিত হয়।

স্যার আইজাক নিউটনের সময় অনেকে বিশ্বাস করত যে প্রিজম নতুন রঙের আলো সৃষ্টি করে। আইজাক নিউটন দুটি প্রিজম নিয়ে দেখেন যে একটির উপর আলো পড়লে সেটি থেকে বর্ণালি সৃষ্টি হয় এবং দ্বিতীয় প্রিজমের মধ্য দিয়ে যাবার সময় তা আবার একটি রঙের আলোতে পরিণত হয়। এবং এই সিদ্ধান্তে পৌছান যে এই বর্ণালি গুলো প্রিজম তৈরি করেনি বরং এগুলো আগে থেকেই সাদা আলোর মাঝে অবস্থান করছিলো।

প্রিজম আলো তৈরি করেনা, আলোর মধ্যে থাকা বর্ণালিগুলোকে শুধুমাত্র পৃথক করে। তিনি একটি লেন্স এবং আরেকটি প্রিজম ব্যবহার করে পূণরায় ঐ বর্ণালিগুলোকে সাদা রঙের আলোতে পরিনত করেন। স্যার আইজাক নিউটনের এই পরীক্ষাটি বিজ্ঞানের ইতিহাসে একটি স্মরণীয় দৃষ্টান্ত হিসাবে চিহ্নিত হয়ে রয়েছে।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

অনেক সময় প্রিজম আলোর বিচ্ছুরন না ঘটিয়ে প্রতিফলন ঘটিয়ে থাকে। আলো প্রিজমের উপর একটি নির্দিষ্ট কোনে আপতিত হলে আলো বিচ্ছুরিত হয় না, বরং পূর্ণ অভ্যন্তরীণ প্রতিফলন ঘটে এবং আপতিত রশ্মির সবটুকুই প্রতিফলিত হয়। প্রিজমের এ ধর্মের কারণে এটিকে কোন কোন সময় আয়নার বিকল্প হিসাবে ব্যবহার করা হয়।

আলোকবিজ্ঞানে, বিচ্ছুরক প্রিজম হল একধরণের আলোকীয় প্রিজম যার জ্যামিতিক আকৃতি সাধারনতঃ ত্রিভুজের মত হয় এবং এই প্রিজমের সাহায্যে সাদা আলোক রশ্মির বিচ্ছুরণের মাধ্যমে বর্ণালী সৃষ্টি করা হয়। আলোকীয় প্রিজমের অন্যতম ধর্ম হল আলোকরশ্মির বিচ্ছুরন যদিও ব্যবহারিক ক্ষেত্রে বিচ্ছুরণের জন্য আলোকীয় প্রিজম খুব একটা ব্যবহার হয়না।

ত্রিভুজ আকৃতির প্রিজমের মাধ্যমে যৌগিক আলোর বিচ্ছুরন ঘটিয়ে বিভিন্ন আলোক রশ্মির বর্ণালি সৃষ্টি করে যৌগিক আলোর উপাদানস্বরূপ বিভিন্ন মৌলিক আলোর বর্ণালীকে আলাধা করা হয়।

যৌগিক আলোর উপদানস্বরূপ বিভিন্ন মৌলিক আলোকরশ্মির তরঙ্গদৈর্ঘ্য বিভিন্ন মানের হয় যা ত্রিভুজাকৃতি প্রিজমের মাধ্যমে বিচ্ছুরিত হয়ে বিভিন্ন কোনে পতিত হয়ে বিভিন্ন বর্ণযুক্ত বর্ণালীর সৃষ্টি করে। প্রিজমের উপাদানের প্রতিসরাঙ্ক -এর কারনেই বিভিন্ন তরঙ্গদৈর্ঘ্য -এর মৌলিক আলোকরশ্মি বিভিন্ন কোনে বিচ্ছুরিত হয়।

স্নেলের সূত্র অনুসারে আলোকরশ্মির তরঙ্গদৈর্ঘ্য এবং আলোকরশ্মি যে মাধ্যমের মধ্যে দিয়ে গমন করে তার প্রতিসরাঙ্ক -এই দুই শর্তের উপর মৌলিক আলোকরশ্মির গতিপথ ও বিচ্ছুরণ কোন নির্ভর করে।

এইভাবেই প্রিজমের উপাদানের প্রতিসরাঙ্ক এবং যৌগিক আলোর মধ্যস্থিত মৌলিক আলোর তরঙ্গদৈর্ঘ্য অনুসারে যৌগিক আলো বিচ্ছুরিত হয়ে বর্না‌লির সৃষ্টি করে। উচ্চ তরঙ্গদৈর্ঘ্য -এর আলোর (যেমন লাল বর্ণের আলো) বিচ্যুতি কম হয় এবং অপেক্ষাকৃত ক্ষুদ্র তরঙ্গদৈর্ঘ্য -এর আলোর (যেমন নীল বর্ণের আলো) বেশি বিচ্যুতি ঘটে।

পদার্থবিদ বর্ন ‌এবং উল্ফ একক-প্রিজমের বিচ্ছুরন প্রক্রিয়ার গাণিতিক বিবরন দিয়েছেন।পদার্থ‌বিদ ডুরাটে যৌগিক প্রিজমের বিচ্ছুরন প্রক্রিয়ার বিবরন দিয়েছেন।

প্রিজমের মাধ্যমে সাদা আলোর বিচ্ছুরন প্রক্রিয়া পর্যবেক্ষণ করে বিজ্ঞানী স্যার আইজাক নিউটন -এই ধারণা করেন যে সাদা আলো বিবিধ বর্ণের আলোর সমষ্টি।

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

মনেকরি, ABC একটি কাচ প্রিজমের প্রধান ছেদ। AB ও AC দুটি প্রতিসারক তল। ∠BAC প্রিজম কোণ=Aএবং BC ভূমি।

ধরি, PQ আপতিত রশ্মি বায়ু হতে কাচ প্রিজমের AB তলের Q বিন্দুতে তির্যকভাবে আপতিত হলো। AB তলের Q বিন্দুতে অংকিত অভিলম্ব NQO’ এর দিকে সরে QR পথে প্রতিসৃত হয়। আবার QR রশ্মিটি প্রিজম হতে বায়ু মাধ্যমে যাবার সময় AC তলের R বিন্দুতে অংকিত অভিলম্ব N’RO’ অভিলম্ব থেকে সরে RS পথে নির্গত হয়।আপতিত রশ্মি PQ কে সামনের দিকে PQL এবং নির্গত রশ্মি RS কে পিছনের দিকে SRO পর্যন্ত বাড়ানো হলো। এরা পরস্পর O বিন্দুতে ছেদ করে। ফলে ΔQOR এর বহিঃস্থ ∠LOR = δ হলো নির্গত রশ্মি হতে আপতিত রশ্মির বিচ্যুতির পরিমাণ।বিচ্যুতির মান নির্ণয়ঃ NQ ও N’R অভিলম্বদ্বয় পরস্পরকে O বিন্দুতে ছেদ করে।

AB তলের Q বিন্দুতে আপতন কোণ, ∠PQN = i₁

প্রতিসরণ কোণ, ∠O’QR = r₁

এবং বিচ্যুতি, ∠RQO = δ₁

AC তলের R বিন্দুতে আপতন কোণ, ∠O’RQ = r₂

নির্গত কোণ, ∠ SRN’ = i₂

এবং বিচ্যুতি, ∠QRO = δ₂

ΔQRO পাওয়া যায়, δ = ∠RQO + ∠QRO = δ₁ + δ₂

= (i₁ – r₁) + ( i₂ – r₂)

= (i₁ + i₂) – (r₁ + r₂) ……………… (1)

AQO’R চতুর্ভুজ থেকে পাই,

∠AQO’ + ∠ARO’ + ∠QAR + ∠QO’R = 360⁰

⤇ 90º + 90⁰ +∠QAR + ∠QO’R = 360⁰

[ ∵ ∠AQO’ = ∠ARO’ = 90⁰ ]

⤇ A + ∠QO’R = 180⁰ ……………….(2)


আবার, ΔQRO’ থেকে পাই,

∠QO’R + r₁ + r₂ = 180⁰ ……………..(3)


(2) নং সমীকরণ থেকে (3) নং সমীকরণ বিয়োগ করে পাই,

A – r₁ – r₂ = 0

∴ A = r₁ + r₂  …………………(4)


(1) ও (4) সমীকরণ থেকে পাই,

বিচ্যুতি কোণের পরিমাণ,

δ = i₁ + i₂ – A …………………(5)

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল ©সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

সবার আগে Assignment আপডেট পেতে Follower ক্লিক করুন

এসাইনমেন্ট সম্পর্কে প্রশ্ন ও মতামত জানাতে পারেন আমাদের কে Google News <>YouTube : Like Page ইমেল : assignment@banglanewsexpress.com

অন্য সকল ক্লাস এর অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর সমূহ :-

  • ২০২১ সালের SSC / দাখিলা পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২১ সালের HSC / আলিম পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ভোকেশনাল: ৯ম/১০ শ্রেণি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • HSC (বিএম-ভোকে- ডিপ্লোমা-ইন-কমার্স) ১১শ ও ১২শ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ১০ম শ্রেণীর পরীক্ষার্থীদের SSC ও দাখিল এসাইনমেন্ট উত্তর লিংক
  • ২০২২ সালের ১১ম -১২ম শ্রেণীর পরীক্ষার্থীদের HSC ও Alim এসাইনমেন্ট উত্তর লিংক

৬ষ্ঠ শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ , ৭ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ ,

৮ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ , ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১

বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস// https://www.banglanewsexpress.com/

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় SSC এসাইনমেন্ট :

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় HSC এসাইনমেন্ট :

শেয়ার করুন:

1 thought on “hsc ভোকেশনাল পদার্থ বিজ্ঞান (২) ১২শ শ্রেণি ৮ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান/ উত্তর ২০২১, পদার্থ বিজ্ঞান (২) ১২শ শ্রেণি ৮ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট hsc ভোকেশনাল সমাধান/ উত্তর ২০২১

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *