alim class 12 hadith sharif assignment answer 6th week 2021, আলিম বিষয়: হাদিস শরীফ ৬ষ্ঠ সপ্তাহের এ্যাসাইনমেন্ট সমাধান ২০২১

alim class 12 hadith sharif assignment answer 6th week 2021, আলিম বিষয়: হাদিস শরীফ ৬ষ্ঠ সপ্তাহের এ্যাসাইনমেন্ট সমাধান ২০২১

Assignment এইচ এস সি পরীক্ষা প্রস্তুতি শিক্ষা
শেয়ার করুন:

অ্যাসাইনমেন্ট: شعب الإيمان بضوء الحديث الشريف

শিখনফল বিষয়বস্তুঃ অধ্যায়: আল ইমান।

নির্দেশনা (সংকেত ধাপ/পরিধি): قال هريرة قال عن أبي رسول الله صلى الله عليه وسلم- « الإيمان بضع وستتغوت أو بضع وستون شغبة فأفضلها قول لا إلة الا الله وأدناها إماطة الأذي عن الطريق والحياء شغية من الإيمان

১. হাদিসটির শাব্দিক ও সরল অনুবাদ; ২. হাদিসটির রাবি পরিচিতি; ৩. ইমানের পরিচয় ও শাখা প্রশাখা; ৪. দূষণমুক্ত পরিবেশ ও শালীন সমাজ গঠনে হাদীসটির প্রয়ােগিক গুরুত্ব সম্পর্কে মতামত;

উত্তর সমূহ:

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

ঈমানের পরিচয় ও শাখা প্রশাখা

হাদিস শরিফে এসেছে, ঈমানের ৭৭টি শাখা-প্রশাখা রয়েছে। এর প্রথমটি হলো (কালিমা তাইয়্যেবাহ) ‘লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহ।’ [আল্লাহ ছাড়া মাবুদ নাই, মুহাম্মদ (সা.) আল্লাহ তাআলার রাসুল]। আর ঈমানের সর্বশেষটি হলো ‘রাস্তা বা পথ থেকে কষ্টদায়ক বস্তু সরিয়ে ফেলা।’ (বুখারি, হাদিস : ৯; মুসলিম, হাদিস : ৩৫)

ঈমান বা বিশ্বাসের ৭৭টি শাখা তিন ভাগে বিভক্ত—(ক) প্রথম সাতটি জবান বা বাক্শক্তির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট। (খ) দ্বিতীয় ৩০টি মন বা বিশ্বাসের সঙ্গে সম্পৃক্ত। (গ) তৃতীয় ৪০টি শরীরের অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ বা কর্মের সঙ্গে সংযুক্ত।

জবানের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ঈমানের ৭টি বিষয়

(১) আল্লাহর একত্ব মুখে স্বীকার করা। (২) কোরআন শরিফ তিলাওয়াত করা। (৩) দ্বিনি ইলম শিক্ষা করা। (৪) দ্বিনি ইলম শিক্ষা দেওয়া ও দিনের প্রচার করা। (৫) দোয়া করা (নিজের ও অন্যের কল্যাণ কামনা করা)। (৬) জিকির করা (আল্লাহর গুণাবলি আলোচনা করা)। স্থান, কাল, পাত্র ও বিষয় নির্ধারিত সুনির্দিষ্ট মাসনুন (হাদিসে বর্ণিত) দোয়াসমূহ অন্যতম জিকির। (৭) বাহুল্য কথাবার্তা বলা ও শোনা থেকে বিরত থাকা।

মনের সঙ্গে সম্পৃক্ত ঈমানের ৩০টি বিষয়

(১) আল্লাহর প্রতি বিশ্বাস। (২) আল্লাহ ছাড়া অন্য সব কিছু তাঁরই সৃষ্টি—এই বিশ্বাস। (৩) ফেরেশতাদের অস্তিত্বের প্রতি বিশ্বাস। (৪) আসমানি কিতাবসমূহে বিশ্বাস। (৫) সব নবী-রাসুলের প্রতি বিশ্বাস। (৬) ভালো-মন্দ তাকদিরের ওপর বিশ্বাস। (৭) কিয়ামত ও বিচার দিবসের প্রতি বিশ্বাস। (৮) জান্নাত বা বেহেশতের প্রতি বিশ্বাস। (৯) জাহান্নাম বা দোজখের প্রতি বিশ্বাস। (১০) আল্লাহর প্রতি ভক্তি ও মহব্বত। (১১) আল্লাহর সন্তুষ্টির জন্য অন্যদের প্রতি ভালোবাসা। (১২) মহানবী (সা.)-কে ভালোবাসা ও শ্রদ্ধা করা। (১৩) সব কাজে রাসুল (সা.)-এর সুন্নতের অনুসরণ করা। (১৪) যেকোনো কাজ ইখলাসের সঙ্গে আল্লাহর সন্তুষ্টির উদ্দেশ্যে করা। (১৫) রিয়া (আত্মপ্রদর্শন) ও মুনাফেকি পরিত্যাগ করা। (১৬) সর্বক্ষণ অন্তরে আল্লাহর ভয় রাখা। (১৭) আল্লাহর রহমতের আশা রাখা। (১৮) কখনো কোনো গুনাহর কাজ হয়ে গেলে সঙ্গে সঙ্গেই তওবা করা। (১৯) সদা সর্বদা কথায় ও কাজে আল্লাহ তাআলার নিয়ামতসমূহের কৃতজ্ঞতা আদায় করতে থাকা। (২০) বৈধ ওয়াদা পালন করা। (২১) কাম রিপুকে নিয়ন্ত্রণ করা। (২২) বিপদে ধৈর্য ধারণ করা। (২৩) আল্লাহ তাআলা যখন যে অবস্থায় রাখেন, তাতে সন্তুষ্ট থাকা। (২৪) বিনয়ী হওয়া। (২৫) বড়দের সম্মান ও ছোটদের স্নেহ করা। (২৬) গর্ব ও অহংকার পরিত্যাগ করা। (২৭) হিংসা-বিদ্বেষ পরিহার করা। (২৮) রাগ-ক্রোধ দমন করা, কারো সঙ্গে মনোমালিন্য না রাখা। (২৯) দুনিয়ার (ধন-সম্পদের) মহব্বত না রাখা। (৩০) লজ্জা থাকা।

কর্মের সঙ্গে সংযুক্ত ঈমানের ৪০টি বিষয়

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

(১) পাক-পবিত্র ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকা। (২) সতর ঢাকা। (৩) নামাজ পড়া। (৪) জাকাত-উশর ও সদকায়ে ফিতর (এবং দান-দক্ষিণা) প্রদান করা। (৫) দাস-দাসীকে মুক্তি দেওয়া। (৬) দানশীল বা উদার মনের অধিকারী হওয়া। (৭) কোরআন-হাদিস-ফিকাহ শিক্ষা করা ও শিক্ষা দেওয়ার ব্যবস্থা করা। (৮) রোজা রাখা। রমজানের শেষ ১০ দিন ইতিকাফ করা ও শবেকদর তালাশ করা। (৯) হজ করা। (১০) হিজরত করা। যে দেশে বা যে সমাজে থেকে দিন-ঈমান রক্ষা করা যায় না, সেই দেশ বা সমাজ ত্যাগ করে অন্যত্র চলে যাওয়া বা পরিবর্তনের চেষ্টা করা। (১১) আল্লাহর ওয়াস্তে মানত করলে তা পূর্ণ করা। (১২) আল্লাহর নামে কোনো জায়েজ কাজে কসম করলে তা পূরণ করা। (১৩) আল্লাহর নামে কসম করে তা ভঙ্গ করলে তার কাফফারা আদায় করা। (নাজায়েজ কাজের কসম করলেও তা ভঙ্গ করে কাফফারা আদায় করা)। (১৪) কাম রিপু প্রবল হলে বিবাহ করা। (১৫) স্ত্রী, সন্তানসন্ততি, পরিবার-পরিজন ও অধীনদের হক আদায়। (১৬) সন্তান প্রতিপালন করা এবং তাদের দ্বিনি ইলম শিক্ষা দেওয়া। (১৭) আত্মীয়-স্বজনের হক প্রদান করা এবং তাদের সঙ্গে সদাচার করা। (১৮) আল্লাহর হুকুমের বিপরীত নয় এমন সব বিষয়ে মনিবের বা মালিকের অনুগত থাকা। (১৯) জায়েজ ও হালাল বিষয়ে ওস্তাদ, পীর, মুরব্বিদের অনুগত থাকা। (২০) মা-বাবার সঙ্গে সদাচার করা। (২১) চাকরবাকর, কর্মচারী ও অধীনদের প্রতি সদয় ব্যবহার করা। (২২) নেতৃবৃন্দ ও দায়িত্বশীলদের ন্যায়পরায়ণ ও দয়ালু হওয়া। (২৩) আহলুস সুন্নাত ওয়াল জামায়াতের অন্তর্ভুক্ত থাকা। (২৪) পরোপকার ও মানবকল্যাণে নিয়োজিত থাকা। (২৫) দায়িত্বশীলদের বৈধ নির্দেশ পালন করা। (২৬) সৎকাজে সহযোগিতা করা ও অসৎ কাজে বাধা প্রদান করা। (২৭) অধীনদের শরিয়তমতো পরিচালনা করা। (২৮) রাষ্ট্রের সীমান্ত রক্ষা করা। (২৯) আমানত রক্ষা করা। মুসলমানের জান, মাল ও ইজ্জত আমানত। (৩০) অভাবগ্রস্তকে কর্জে হাছানা (লাভবিহীন ঋণ) দিয়ে সাহায্য করা। (৩১) ঋণ পরিশোধ করা এবং পরিশোধের পূর্বে তা পরিশোধ করার দৃঢ় ইচ্ছা রাখা। (৩২) পাড়া-প্রতিবেশীর উপকার করা এবং তারা কোনো ধরনের কষ্ট দিলে বা ক্ষতি করলে তা অম্লান বদনে সহ্য করা। (৩৩) কাজকারবার, লেনদেন পরিষ্কার রাখা, পাওনা আদায় করতে কঠোরতা ও দেনা পরিশোধ করতে শিথিলতা না করা। (৩৪) মাপে কমবেশি না করা, পণ্যে ভেজাল না দেওয়া। (৩৫) সুদ-ঘুষ ইত্যাদি থেকে বেঁচে থাকা। (৩৬) সম্পদের সদ্ব্যবহার (বৈধভাবে উপার্জন ও জায়েজ পন্থায় ব্যয়) করা। (৩৭) সালামের জবাব দেওয়া এবং হাঁচির উত্তর দেওয়া (দোয়া পড়া)। (৩৮) অবৈধ খেলাধুলা, রং-তামাশা ইত্যাদি থেকে দূরে থাকা। (৩৯) ঈদের নামাজ আদায় করা ও কোরবানি করা। (৪০) রাস্তায় কষ্টদায়ক কোনো কিছু থাকলে তা অপসারণ করা। (বুখারি ও মুসলিম)

দূষণমুক্ত পরিবেশ ও সুশীল সমাজ প্রতিষ্ঠায় হাদীসটির প্রয়ােগিক গুরুত্ব সম্পর্কে মতামতঃ

ছবি উত্তর সূত্র: আমল ও আখলাক ইউটিব চ্যানেল থেকে

[ বি:দ্র: নমুনা উত্তর দাতা: রাকিব হোসেন সজল (বাংলা নিউজ এক্সপ্রেস)]

আমাদের YouTube এবং Like Page

  • ১১ম -১২ম শ্রেণীর এইচএসসি ও আলিম এসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ১০ম শ্রেণীর এসএসসি ও দাখিল এসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৬ষ্ঠ ,৭ম,৮ম ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৮ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৭ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৬ষ্ঠ শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক

এখানে সকল প্রকাশ শিক্ষা বিষয় তথ্য ও সাজেশন পেতে আমাদের সাথে থাকুন ।

শেয়ার করুন:

আপনার মূল্যবান মতামত দিন